বিপিএলে থাকার আকুতি নাফিসার

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের চেতনা শুধু নিজে নন পুরো নাফিসা কামালের পরিবারই ধারণ করে। সেখানে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীকে উৎসর্গ করে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) থাকতে পারবেন না সেটা মানতেই পারছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের কর্ণধার। এ আফসোসটাই পোড়াচ্ছে তাকে। আর সে কারণেই নতুন নিয়মে অনুষ্ঠিতব্য আগামী বিপিএলে খেলার আকুতি প্রকাশ করেছেন তিনি।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের চেতনা শুধু নিজে নন পুরো নাফিসা কামালের পরিবারই ধারণ করে। সেখানে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীকে উৎসর্গ করে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) থাকতে পারবেন না সেটা মানতেই পারছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের কর্ণধার। এ আফসোসটাই পোড়াচ্ছে তাকে। আর সে কারণেই নতুন নিয়মে অনুষ্ঠিতব্য আগামী বিপিএলে খেলার আকুতি প্রকাশ করেছেন তিনি।

বিপিএলের সঙ্গে নাফিসাদের যাত্রা শুরু থেকেই। প্রথম দফায় দুই আসরে সিলেট রয়ালসের হয়ে। শেষ চার আসরে ভিক্টোরিয়ান্সের হয়ে তো দুইবার শিরোপাই জিতলেন। বর্তমান চ্যাম্পিয়নও তারা। কিন্তু আসন্ন আসরেই যেন সব প্রাপ্তি ধুলোয় মিশতে চলেছে। কারণ তিলে তিলে গড়া স্বপ্নটা হুট করেই যেন ফিকে হয়ে যাচ্ছে।

আগামী বিপিএলে থাকছে না কোন ফ্র্যাঞ্চাইজি। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) অধীনেই হবে এ আসর। তাই চাইলেও থাকতে পারছেন না নাফিসা। যে কারণে নিয়ম বদলের অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি, ‘আমরা আশা করি যে আমাদের বিষয়টা পুনরায় বিবেচনা করা হবে। আমরা আমাদের সর্বোচ্চ সমর্থন দেবো। আমরা এটার অংশীদার হতে চাই। শ্রদ্ধার সঙ্গে, গর্বের সঙ্গে আমরা এখানে যোগ দিতে চাই।’

আর তার কারণও ব্যাখ্যা করেছেন নাফিসা, ‘বঙ্গবন্ধু বিপিএলের বাইরে আমরা থাকব, এটা কল্পনাও করতে পারিনি। আমি যে পরিবারে বেড়ে উঠেছি সেখানে বঙ্গবন্ধুর চেতনা কিভাবে কাজ করে তা আপনারা জানেন। তাই এই আসরের বাইরে থাকব এটা কল্পনাও করিনি। আমি গতকাল বলেছি, এবার আমাদের যত দাবি দাওয়া আছে তা যেন ভুলে যাই, বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আমরা যাবো। মাঠে খেলব। গত ছয় আসর থেকে এবার দলটিকে আরও সুন্দর করে সাজাব।’

ছয় মৌসুম পার করার পর বিপিএলের প্রথম সাইকেল শেষ হয়। নতুন সাইকেল শুরু হওয়ার আগে বেশ কিছু দাবী-দাওয়া রাখে ফ্র্যাঞ্চাইজি দলগুলো। মূলত সেসব দাবী পূরণ করতে পারবে না বলেই নিজস্ব উদ্যোগে বিপিএল আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিবি। এর ব্যাখ্যাও দিয়েছেন নাফিসা, ‘আমরা দাবী করেছি। সভায় বলা হয়েছিল, ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আপনাদের কাছে একটা ড্রাফট পাঠানো হবে। রাজি থাকলে পরবর্তী চার বছরের জন্য আপনারা আমাদের সঙ্গে থাকবেন। না থাকলেও একটা সভা হবে… আলোচনা অসমাপ্ত ছিল, হুট করে আমাদের বাতিল করে দেওয়া হল।’

তবে চাইলে স্পন্সর হিসেবে বিপিএলে থাকার সুযোগ রেখেছে বিসিবি। কিন্তু সেটায় আপত্তি রয়েছে নাফিসার, ‘কুমিল্লা দলটা আমার বাচ্চার মতো। তিলে তিলে গড়ে তুলেছি। একাদশে কারা খেলবে, কোন হোটেলে থাকবে, প্লেয়ারকে কোন এয়ারলাইন্সে আনা হবে সব আমরা দেখি। আমার টিমের যে স্পন্সর আছে তাদের এই ব্যাপারে কোনো কিছু বলার থাকে না।’

এদিকে সংবাদ সম্মেলনে বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপন নতুন নিয়মে বিপিএলের কথা জানালেও আনুষ্ঠানিকভাবে কুমিল্লা কিংবা কোন ফ্র্যাঞ্চাইজিদের জানায়নি। এর কারণও অবশ্য রয়েছে। কারণ এর মধ্যেই তাদের সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ শেষ। তাই আনুষ্ঠানিকতার কোন চিন্তা করেনি বিসিবি। কিন্তু বেশ কিছু খেলোয়াড়ের সঙ্গে চুক্তিও করে ফেলেছে নাফিসা কামালের। চুক্তি করতে চেয়েছিল আরও বেশ কিছু খেলোয়াড়ের সঙ্গে। তাই আর্থিক ক্ষতিতেও পড়ছে দলটি।

এদিকে প্রায় প্রতি বছরই নতুন নতুন নিয়ম তৈরি হওয়ায় বিপিএলের পেশাদারিত্ব নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। আর বর্তমান নিয়মে তো এর প্রভাব আরও বেশি পড়বে। কারণ অনেক বিশ্বমানের খেলোয়াড়ই নিজ দেশের কিংবা অন্য কোন ফ্র্যাঞ্চাইজিদের উপেক্ষা করে চুক্তি করেছিলেন বিপিএলে। সেক্ষেত্রে নেতিবাচক প্রভাব পড়বে সেসব খেলোয়াড়দের মনেও। আগামীতে হয়তো বড় তারকাদের দলে টানা কষ্টই হয়ে যাবে দলগুলোর।

Comments

The Daily Star  | English
bailey road fire

Owners of shopping mall, ‘Chumuk’, ‘Kacchi Bhai’ sued

Police have filed a case against Amin Mohammad Group and three persons for the deadly fire at the Green Cozy Cottage shopping mall on Bailey Road in Dhaka that claimed 46 lives

1h ago