রুবেলের ৭ উইকেট, নাসিরের সেঞ্চুরি

জাতীয় ক্রিকেট লিগে দ্বিতীয় দিনে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করেছেন রুবেল হোসেন। আগুন ঝরা বোলিংয়ে একাই সাতটি উইকেট তুলে নিয়ে রাজশাহীকে অল্প রানেই গুটিয়ে দিয়েছেন এ পেসার। অন্যদিকে ঢাকা বিভাগের বিপক্ষে দারুণ এক সেঞ্চুরি তুলে অপরাজিত রয়েছেন নাসির হোসেন। আর তরুণ মুকিদুল ইসলাম তুলে নিয়েছেন ক্যারিয়ারের প্রথম ফাইফার। আর ঢাকা মেট্রোর হয়ে দারুণ ব্যাটিং করেছেন আজমির আহমেদ ও মার্শাল আইয়ুব।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

জাতীয় ক্রিকেট লিগে দ্বিতীয় দিনে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করেছেন রুবেল হোসেন। আগুন ঝরা বোলিংয়ে একাই সাতটি উইকেট তুলে নিয়ে রাজশাহীকে অল্প রানেই গুটিয়ে দিয়েছেন এ পেসার। অন্যদিকে ঢাকা বিভাগের বিপক্ষে দারুণ এক সেঞ্চুরি তুলে অপরাজিত রয়েছেন নাসির হোসেন। আর তরুণ মুকিদুল ইসলাম তুলে নিয়েছেন ক্যারিয়ারের প্রথম ফাইফার। আর ঢাকা মেট্রোর হয়ে দারুণ ব্যাটিং করেছেন আজমির আহমেদ ও মার্শাল আইয়ুব।

খুলনা বিভাগ বনাম রাজশাহী বিভাগ

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বৃষ্টির কারণে প্রথম দিনে এক বলও মাঠে গড়ায়নি। দ্বিতীয় দিনে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে রুবেল হোসেনের তোপে পড়ে রাজশাহী। নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে মাত্র ১৫১ রানে গুটিয়ে যায় তারা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৮ রান করেন আট নম্বরে নামা সানজামুল ইসলাম। ৫১ রানের খরচায় ৭টি উইকেট নিয়েছেন রুবেল হোসেন। প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে এটা তার সেরা বোলিং ফিগার।

নিজেদের প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে দিন শেষে ৪ উইকেটে ১৫৪ রান তুলেছে খুলনা। দলীয় ৪৫ রানে দুই ওপেনারকে হারানোর পর অমিত মজুমদারের সঙ্গে ৯৬ রানের জুটি গড়েন তুষার ইমরান। দুই জনই হাফসেঞ্চুরি করে ফিরেছেন। তুষার ৫৮ ও অমিত ৫৮ রান করেন। রাজশাহীর পরক্ষে ২টি করে উইকেট নিয়েছেন মোহর শেখ অন্তর ও মুক্তার আলী। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

রাজশাহী ১ম ইনিংস: ৫০.৪ ওভারে ১৫১ (অভিষেক ৯, মিজানুর ৪৩, জুনায়েদ ২৩, ফরহাদ হোসেন ৯, শাকির ০, মুক্তার ১০, সাব্বির ১, সানজামুল ৪৮, ফরহাদ রেজা ৪, সুজন ০, মোহর ০*; রুবেল ৭/৫১, হালিম ০/১৯, রাজ্জাক ২/৬০, জিয়াউর ১/২১, নাহিদুল ০/০)।

খুলনা ১ম ইনিংস: ৫৪ ওভারে ১৫৪/৪ (রবি ১২, এনামুল ৭, অমিত ৫৯, তুষার ৫৮, সোহান ৬*, নাহিদুল ৬*; ফরহাদ রেজা ০/২৩, মোহর ২/৩২, সুজন ০/৩৯, মুক্তার ২/২৬, সানজামুল ০/৩১)।

ঢাকা বিভাগ বনাম রংপুর বিভাগ

বগুড়ার শহীদ চান্দু স্টেডিয়ামে আগের দিনের ৫ উইকেটে ১৯৫ রান নিয়ে ব্যাট করতে নামা ঢাকা বিভাগ শেষ পাঁচ উইকেট হারায় স্কোরবোর্ডে মাত্র ২৭ রান যোগ করেই। ২৯ রান করেন নাদিফ চৌধুরী। ক্যারিয়ারের প্রথম প্রথম পাঁচ উইকেট তুলে নেন মুকিদুল ইসলাম।

নিজেদের প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে নাসির হোসেনের সেঞ্চুরিতে দিন শেষে ৫ উইকেটে ২০০ রান তুলেছে রংপুর। ১০৪ রানে অপরাজিত আছেন নাসির। ২০৫ বলে ১১টি চারের সাহায্যে এ রান করেন তিনি। নাঈম ইসলাম ব্যাট করছেন ২৬ রানে। ঢাকার পক্ষে ২টি করে উইকেট পেয়েছেন আরাফাত সানি জুনিয়র ও তাইবুর রহমান। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

রংপুর ১ম ইনিংস: ২৩৪

ঢাকা ১ম ইনিংস: ৬৪.১ ওভারে ২২২ (আগের দিন ১৯৫/৫) (জয়রাজ ৯, মজিদ ৫২, রকিবুল ৬৭, তাইবুর ৩৪, শুভাগত ১, নাদিফ ২৯, সানি ১৯, শাকিল ০, নাজমুল ৫, শাহাদাত ০, সালাউদ্দিন ০*; আলাউদ্দিন ২/৪৪, আরিফুল ১/৩৫, মুকিদুল ৫/৩৭, সোহরাওয়ার্দী ০/২৯, রিশাদ ১/৬৬, আব্দুর রহমান ০/৬, নাসির ১/০)।

রংপুর ২য় ইনিংস: ৮১ ওভারে ২০০/৫ (রিশাদ ৫, মারুফ ১৭, সোহরাওয়ার্দী ১, নাসির ১০৪*, আরিফুল ৩০,  তানবীর ৯, নাঈম ২৬*; শাহাদত ০/২, সালাউদ্দিন ০/৩২, অপু ১/৫৮, সানি জুনিয়র ২/৩৬, শুভাগত ০/৩৭, তাইবুর ২/২৭)।

ঢাকা মেট্রো বনাম সিলেট বিভাগ

রাজশাহীর শহীদ কামরুজ্জামান স্টেডিয়ামে আগের দিনের ৬ উইকেটে ৩২২ রানে ব্যাট করতে নামা সিলেট বিভাগ এদিন শেষ চার উইকেট হারিয়ে ২৯ রান যোগ করতে পেরেছে। ঢাকা মেট্রোর পক্ষে ৩টি করে উইকেট নিয়েছেন শহিদুল ইসলাম ও শরিফুল্লাহ।

প্রথম ইনিংসে ৪০ রানে পিছিয়ে থেকে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে দিন শেষে ৪ উইকেটে ২৪৫ রান করেছে ঢাকা মেট্রো। ফলে দ্বিতীয় দিন শেষেই লিড ২০৫ রানের। আজমির আহমেদ খেলেন ৮০ রানের দারুণ এক ইনিংস। মার্শাল আইয়ুব ৭৩ রানে অপরাজিত আছেন। সিলেটের পক্ষে ২টি উইকেট নিয়েছেন এনামুল হক জুনিয়র। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

ঢাকা মেট্রো ১ম ইনিংস: ৮৩.৫ ওভারে ৩১১/৮ (ইনিংস ঘোষণা)

সিলেট ১ম ইনিংস: (আগের দিন ৩২২/৬) ১০১.৩ ওভারে ৩৫১ (ইমতিয়াজ ৩৩, শানাজ ৬, তৌফিক ১৪, অমিত ১২৫, কাপালি ৩২, গালিব ৫৯, রাহাতুল ৩৯, এনামুল জুনিয়র ২০, নাসুম ১১, রেজাউর ৮, আবিদুল ০*; তাসকিন ২/৫৪, শহিদুল ৩/৬৩, মানিক ০/৬৩, নিহাদুজ্জামান ০/৪৩, শরিফুল্লাহ ৩/৮৩, আজমির ০/১৩, আল আমিন ১/২৭)।

ঢাকা মেট্রো ২য় ইনিংস: ৭৫ ওভারে ২৪৫/৪ (আজমির ৮০, রাকিন ১৫, শামসুর ৩৭, মার্শাল ৭৩*, আল আমিন ৪, জাবিদ ১৯*; রেজাউর ১/৩০, আবিদুর ০/৩৫, নাসুম ০/৪৮, এনামুল জুনিয়র ২/৮০, অলক ১/৪৬)।

বরিশাল বিভাগ বনাম চট্টগ্রাম বিভাগ

বরিশাল বিভাগীয় স্টেডিয়ামে প্রথম দিনের মতো দ্বিতীয় দিনেও মাঠে গড়ায়নি একটি বলও।

Comments

The Daily Star  | English

PM visits areas devastated by Cyclone Remal

Prime Minister Sheikh Hasina today visited the most affected areas in the country's south by Cyclone Remal

1h ago