খেলা

মোস্তাফিজ-তাসকিন ঘুরে দাঁড়াবেন, বিশ্বাস রুশোর

চট্টগ্রামের উইকেট বরাবরই ব্যাটিং বান্ধব। তাই বলে যে বোলারদের একেবারেই কিছু করার নেই, তা নয়। সঠিক লাইন-লেংথে বল করতে পারলে সাফল্য মেলে। আর তা যে পারা যায় তার উদাহরণ এদিনই করে দেখালেন শফিউল ইসলাম। রংপুর র‍্যাঞ্জার্সকে অল্প রানে বেঁধে ফেলায় মুখ্য ভূমিকা তার। এর আগে তা করে দেখিয়েছেন তরুণ মেহেদী হাসান রানাও। টানা দুই ম্যাচের সেরাই তো তিনি। কিন্তু সেখানে দেশের সেরা বোলারের খেতাব নিয়েও ব্যর্থ মোস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদরা। তবে খুলনা টাইগার্সের ব্যাটসম্যান রাইলি রুশো অবশ্য বিশ্বাস করেন খুব শীগগিরই ঘুরে দাঁড়াবেন তারা।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

চট্টগ্রামের উইকেট বরাবরই ব্যাটিং বান্ধব। তাই বলে যে বোলারদের একেবারেই কিছু করার নেই, তা নয়। সঠিক লাইন-লেংথে বল করতে পারলে সাফল্য মেলে। আর তা যে পারা যায় তার উদাহরণ এদিনই করে দেখালেন শফিউল ইসলাম। রংপুর র‍্যাঞ্জার্সকে অল্প রানে বেঁধে ফেলায় মুখ্য ভূমিকা তার। এর আগে তা করে দেখিয়েছেন তরুণ মেহেদী হাসান রানাও। টানা দুই ম্যাচের সেরাই তো তিনি। কিন্তু সেখানে দেশের সেরা বোলারের খেতাব নিয়েও ব্যর্থ মোস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদরা। তবে খুলনা টাইগার্সের ব্যাটসম্যান রাইলি রুশো অবশ্য বিশ্বাস করেন খুব শীগগিরই ঘুরে দাঁড়াবেন তারা।

বিপিএলের এবার এখন পর্যন্ত চার ম্যাচ খেলেছেন মোস্তাফিজ। নামের পাশে উইকেট চারটি। তবে ছিলেন বেশ খরুচে। ওভার প্রতি রান দিয়েছেন ৮.৪০ করে। এদিন ইনিংসের প্রথম ওভারে তিনটি ওয়াইড দিয়ে মোট ৯ রান খরচ করেন মোস্তাফিজ। পরের ওভারে অবশ্য উইকেট পেয়েছেন নাজমুল হোসেন শান্তর। তবে এবারও খরচ করতে হয় ৯ রান। দুই ওভারে ১৮ রান দেওয়ার পর তাকে আর আক্রমণে আনেননি রংপুর অধিনায়ক মোহাম্মদ নবি।

তাসকিনের অবস্থা তো আরও খারাপ। লাইন-লেংথে কোন নিয়ন্ত্রণই নেই। দল চারটি ম্যাচ খেললেও তিনি খেলেছেন তিন ম্যাচ। তাতে মোটে ছয় ওভার বল করার সুযোগ পেয়েছেন। তাতেই খরচ করেছেন ৭৬ রান। ওভার প্রতি প্রায় ১২.৬৭। উইকেটের দেখা নেই। এদিন তো তিন ওভারেই দিয়েছেন ৩৯ রান। পাঁচ ওভারের বেশি বল করা বোলারদের মধ্যে এবার সবচেয়ে খরুচে এই তাসকিনই।

তবে প্রতিপক্ষ দলের হলেও তাদের প্রতি বিশ্বাস রয়েছে রুশোর, 'মোমেন্টাম না থাকলে কাজটা খুব কঠিন। তারা এ নিয়ে চারটি ম্যাচ হারল। তাই মোমেন্টাম পাওয়া এবং সঠিক পেসে বল করা খুব কঠিন। মোস্তাফিজ বেশ গতিময় কিন্তু তাদের কাউকে ঘুরে দাঁড়াতে হবে, মোমেন্টাম বদলাতে হবে। বাংলাদেশের এ সকল বোলাররা অনেক অভিজ্ঞ। আমি নিশ্চিত তারা ফিরে আসবেই। তারা পেশাদার। হয়তো তাদের দিন ঠিকঠাক যাচ্ছে না। কিন্তু আমি নিশ্চিত তারা ফিরে আসবেই।'

Comments

The Daily Star  | English

AL govt closed down routes used for arms smuggling thru Bangladesh: PM

As a result, peace prevails in the seven sister states of India, she says

1h ago