ট্রাম্পের ‘পাশে আছি’ টুইটের সমালোচনায় ইরানিরা

ইউক্রেনীয় উড়োজাহাজ ভূপাতিতের কথা ইরান স্বীকার করে নেওয়ার পর গতকাল (১১ জানুয়ারি) থেকে ইরানের রাজধানী তেহরানে চলছে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ-সমাবেশ। সেই সমাবেশ থেকে উঠেছে দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনির পদত্যাগের দাবিও।
Trump and Iran protest
ছবি: সংগৃহীত

ইউক্রেনীয় উড়োজাহাজ ভূপাতিতের কথা ইরান স্বীকার করে নেওয়ার পর গতকাল (১১ জানুয়ারি) থেকে ইরানের রাজধানী তেহরানে চলছে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ-সমাবেশ। সেই সমাবেশ থেকে উঠেছে দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনির পদত্যাগের দাবিও।

সেই বিক্ষোভে ভীষণ খুশি যুক্তরাষ্ট্র। বিক্ষোভের সংবাদ পেয়েই রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প টুইট করে সমর্থন জানিয়েছেন বিক্ষোভকারীদের। শুনিয়েছেন তাদের ‘পাশে থাকার’ বাণী।

কিন্তু, ট্রাম্পের সেই বাণীর প্রতি আস্থা রাখেননি ইরানের অনেকেই। বরং ফিরতি বার্তা পাঠিয়ে ট্রাম্পকেই তুলোধুনো করেছেন তারা।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে বলা হয়েছে, ইরানের বিক্ষোভকারীদের প্রতি সমর্থন ও সহমর্মিতা প্রকাশ করে ট্রাম্প ইংরেজি এবং ফারসি ভাষায় দুটি টুইট করেছেন। তিনি লিখেছেন, “ইরানের সাহসী ও ভুক্তভোগী জনগণকে: আমি রাষ্ট্রপতি হিসেবে ক্ষমতা গ্রহণের শুরু থেকেই আপনাদের পাশে আছি এবং আমার প্রশাসন আপনাদের সমর্থন দিয়ে যাবে।”

তিনি আরও বলেন, “আমরা আপনাদের প্রতিবাদ নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করছি। আপনাদের সাহস আমাদের অনুপ্রেরণা যোগায়।”

কিন্তু, ট্রাম্পের সেই আশ্বাস-বাণীকে ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করেছেন অনেকে। টুইটার ব্যবহারকারীদের কেউ কেউ ট্রাম্পকে মনে করিয়ে দিয়েছেন ইরানের ‘৫২ স্থাপনায়’ হামলার হুমকির কথা। কেউ কেউ মনে করিয়ে দিয়েছেন ‘যুক্তরাষ্ট্র ভ্রমণে ইরানিদের ওপর ট্রাম্প প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞার’ বিষয়টিও।

ইরানের জনগণের কাছে জীবনরক্ষাকারী ওষুধ বিক্রির ওপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার কথাও ট্রাম্পকে স্মরণ করিয়ে দিয়েছেন অনেকে।

আরও পড়ুন:

খামেনির পদত্যাগের দাবিতে তেহরানে বিক্ষোভ, সমর্থনে ট্রাম্পের টুইট

তেহরানে ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত গ্রেপ্তার, তিন ঘণ্টা পর মুক্তি

Comments