‘বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রে বিভাজন তৈরি করেছেন মোদি’

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও তার দল (বিজেপি) বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রে বিভাজন তৈরি করেছেন বলে মন্তব্য করেছে দ্য ইকোনমিস্ট।
Modi.jpg
নরেন্দ্র মোদি। ছবি: রয়টার্স

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও তার দল (বিজেপি) বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রে বিভাজন তৈরি করেছেন বলে মন্তব্য করেছে দ্য ইকোনমিস্ট। 

দ্য ইকোনমিস্ট তাদের সাম্প্রতিক প্রচ্ছদে ভারতকে ‘অসহিষ্ণু ভারত’ হিসেবে উল্লেখ করেছে।

গতকাল (২৩ জানুয়ারি) প্রচ্ছদটি টুইট করে তারা লিখেছে ‘ভারতের প্রধানমন্ত্রী এবং তার দল কীভাবে বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রকে বিপন্ন করছেন তা জেনে নিন।’

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) এবং জাতীয় নাগরিকপঞ্জি (এনআরসি) নিয়ে মোদি সরকারের তীব্র সমালোচনা করেছে দ্য ইকোনমিস্ট।

ভারতের ২০ কোটি মুসলিম আতঙ্কে রয়েছেন বলে দ্য ইকোনমিস্টের সর্বশেষ সংস্করণে জানানো হয়েছে। তারা জানিয়েছে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ভারতকে একটি হিন্দু রাষ্ট্র হিসেবে গঠন করতে চাইছেন এমন শঙ্কায় আছে সেখানকার মুসলিমরা।

৮০-এর দশকে রাম মন্দির আন্দোলনের মাধ্যমে বিজেপির উত্থানকে চিহ্নিত করে এতে যুক্তি দেখানো হয়েছে, ‘নরেন্দ্র মোদি এবং বিজেপি ধর্মীয় রাজনীতির মাধ্যমে বিভেদ সৃষ্টি করে রাজনৈতিকভাবে লাভবান হতে পারে।’

বিশ্বের গণতান্ত্রিক দেশের তালিকা থেকে ভারতকে ১০ ধাপ নিচে নামিয়ে দিয়েছে ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের শাখা দ্য ইকোনমিস্ট। ডেমোক্রেসি ইনডেক্সে  ১৬৫টি দেশের মধ্যে ভারতের বর্তমান অবস্থান ৫১।

দ্য ইকোনমিস্টের গবেষণা ও বিশ্লেষণ বিভাগ ভারতের এই অবনমনকে ‘গণতন্ত্রের ওপর নাগরিক স্বাধীনতার অবক্ষয়’ হিসেবে চিহ্নিত করেছে।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclones in Bangladesh: Fewer but fiercer since the 90s

Though the number of cyclones in general has come down in Bangladesh over the years, the intensity of the cyclones has increased, meaning the number of super cyclones has gone up, posing a greater threat to people in coastal areas, a recent study found

34m ago