খেলা

চট্টগ্রামে নাফীস-শামসুর-মাহমুদউল্লাহর সেঞ্চুরি

উত্তরাঞ্চল ও দক্ষিণাঞ্চলের ম্যাচে ফজলে মাহমুদ ছাড়া আগের দুটি ইনিংসে সুবিধা করে উঠতে পারেননি কোনো ব্যাটসম্যানই। সেই চিত্র পাল্টে ম্যাচের তৃতীয় দিনেই সেঞ্চুরি এসেছে তিনটি! দক্ষিণাঞ্চলের শাহরিয়ার নাফীস, শামসুর রহমান ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ছুঁয়েছেন তিন অঙ্ক। তাতে উত্তরাঞ্চলকে বড় লক্ষ্য ছুঁড়ে দিয়েছে তারা।

উত্তরাঞ্চল ও দক্ষিণাঞ্চলের ম্যাচে ফজলে মাহমুদ ছাড়া আগের দুটি ইনিংসে সুবিধা করে উঠতে পারেননি কোনো ব্যাটসম্যানই। সেই চিত্র পাল্টে ম্যাচের তৃতীয় দিনেই সেঞ্চুরি এসেছে তিনটি! দক্ষিণাঞ্চলের শাহরিয়ার নাফীস, শামসুর রহমান ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ছুঁয়েছেন তিন অঙ্ক। তাতে উত্তরাঞ্চলকে বড় লক্ষ্য ছুঁড়ে দিয়েছে তারা।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় দিনের ১ উইকেটে ৪০ রান নিয়ে রবিবার (২ ফেব্রুয়ারি) ব্যাট করতে নামে দক্ষিণাঞ্চল। উত্তরাঞ্চলের বোলারদের হতাশা বাড়িয়ে ২১১ রানের দারুণ এক জুটি উপহার দেন আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান নাফীস ও শামসুর। সেঞ্চুরি করে নাফীস বিদায় নিলে শামসুরের সঙ্গে জুটি বাঁধেন বাংলাদেশ জাতীয় দলের ব্যাটসম্যান মাহমুদউল্লাহ। তারা গড়েন ১২১ রানের জুটি।

শামসুরও সেঞ্চুরি তুলে সাজঘরে ফিরলে আগের দিন আঘাত পেয়ে অবসর নেওয়া এনামুল হক বিজয় ফের মাঠে নামেন। জুটি বাঁধেন মাহমুদউল্লাহর সঙ্গে। ১৫৫ রানের অবিচ্ছিন্ন এক জুটি গড়েন তারা। পাকিস্তানের বিপক্ষে রাওয়ালপিন্ডি টেস্টের আগে প্রস্তুতিটা দারুণভাবে সারেন মাহমুদউল্লাহ। তিনি তিন অঙ্ক স্পর্শ করতেই দলীয় ৩৯৮ রানে ইনিংস ঘোষণা করেন অধিনায়ক আব্দুর রাজ্জাক। দক্ষিণাঞ্চলের লিড তখন ৪৫৩ রানের।

নাফীস ও শামসুর ধৈর্যশীল ইনিংস খেললেও মাহমুদউল্লাহ ব্যাট করেন টি-টোয়েন্টি স্টাইলে। মাত্র ৭০ বলে শতরান করে অপরাজিত থাকেন তিনি। ৮টি চার ও ৫টি ছক্কায় সাজান নিজের ইনিংস। ২৫১ বলে ১২টি চারের সাহায্যে ১১১ রানের ইনিংস খেলেন নাফীস। ২২২ বল ১১টি চারের সাহায্যে শামসুর করেন ১০৯ রান।

এদিন অনন্য এক মাইলফলক স্পর্শ করেন বাঁহাতি ওপেনার নাফীস। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বাংলাদেশের সপ্তম ব্যাটসম্যান হিসেবে আট হাজারি ক্লাবে জায়গা করে নেন তিনি। ১২২ ম্যাচের ২১৭ ইনিংস ব্যাট করে আট হাজারের কোটা পার করেন তিনি। প্রথম শ্রেণিতে নাফীসের এটি ১৫তম সেঞ্চুরি।

৪৫৪ রানের লক্ষ্য নিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে কোনো উইকেট না হারিয়ে ২২ রান তুলেছে উত্তরাঞ্চল। মিজানুর রহমান ১৫ ও রনি তালুকদার ৭ রানে উইকেটে আছেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: (তৃতীয় দিন শেষে)

দক্ষিণাঞ্চল প্রথম ইনিংস: ২৬২

উত্তরাঞ্চল প্রথম ইনিংস: ২০৭

দক্ষিণাঞ্চল দ্বিতীয় ইনিংস: (আগের দিন ৪০/১) (নাফীস ১১১, বিজয় ৬৪*, ফজলে ২, শামসুর ১০৯, মাহমুদউল্লাহ ১০০*; ইবাদত ০/৭০, তাসকিন ১/৬৮, আরিফুল ২/৫১, সুমন ০/৯৬, সানজামুল ০/৮৪, তানবির ০/১৮, নাঈম ০/৫)

উত্তরাঞ্চল দ্বিতীয় ইনিংস: (লক্ষ্য ৪৫৪) ৬ ওভারে ২২/০ (মিজানুর ১৫*, রনি ৭*; শফিউল ০/১৬, আল-আমিন ০/০, রাজ্জাক ০/৬)।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclones now last longer

Remal was part of a new trend of cyclones that take their time before making landfall, are slow-moving, and cause significant downpours, flooding coastal areas and cities. 

3h ago