টেস্টে ফেরার জন্য মোস্তাফিজকে যে পরামর্শ দিলেন ডমিঙ্গো

দীর্ঘ সংস্করণের ক্রিকেটে ফিরতে বাঁহাতি তারকাকে টেকনিক্যাল বিষয় নিয়ে কাজ করতে বললেন প্রধান কোচ।
mustafizur rahman
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

পাকিস্তান সফরের টেস্ট দলে জায়গা না পেলেও মোস্তাফিজুর রহমানকে সীমিত পরিসরের ক্রিকেটে বাংলাদেশের এক নম্বর বোলার হিসেবে উল্লেখ করেছেন প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। তবে দীর্ঘ সংস্করণের ক্রিকেটে ফিরতে বাঁহাতি তারকাকে টেকনিক্যাল বিষয় নিয়ে কাজ করার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

দ্বিতীয় দফার পাকিস্তান সফরে রাওয়ালপিন্ডিতে একটি টেস্ট খেলবে বাংলাদেশ। মুমিনুল হকের নেতৃত্বে টাইগাররা মাঠে নামবে আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি। পাকিস্তানের উদ্দেশে রওয়ানা হওয়ার আগের দিন সোমবার (৩ ফেব্রুয়ারি) আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে ডমিঙ্গো কথা বলেছেন মোস্তাফিজের বর্তমান পরিস্থিতি ও ভবিষ্যৎ নিয়ে।

দুদিন আগে ঘোষিত ১৪ সদস্যের টেস্ট দলে মোস্তাফিজকে না রাখার ব্যাখ্যায় বাংলাদেশ দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানিয়েছিলেন, ‘ওকে (মোস্তাফিজ) বাদ দেওয়া হয়েছে। পারফরম্যান্সের কারণে বাদ দেওয়া হয়েছে। দীর্ঘ সংস্করণের ক্রিকেটে ওর পারফরম্যান্স যথেষ্ট ভালো নয়। আমরা মনে করছি, অন্যরা এই জায়গায় তার চেয়ে ভালো অপশন।’

কেবল কি দীর্ঘ সংস্করণের ক্রিকেটেই পারফরম্যান্স ভালো নয় মোস্তাফিজের? পাকিস্তানের মাটিতে সবশেষ টি-টোয়েন্টি সিরিজের দুই ম্যাচেও ভীষণ খরুচে ছিলেন তিনি। প্রথম ম্যাচে ৪ ওভারে ৪০ রান দিয়ে পেয়েছিলেন ১ উইকেট। পরের ম্যাচে ৩ ওভারে ২৯ রান দিয়ে থাকেন উইকেটশূন্য।

ডমিঙ্গো বললেন, ‘মোস্তাফিজ জানে যে সে চাপে আছে, বিশেষ করে সাদা বলের ক্রিকেটে (ওয়ানডে ও টি- টোয়েন্টিতে)। তবে অভিজ্ঞতা আর স্কিল মিলিয়ে সে এখনও আমার কাছে দলের এক নম্বর বোলার। কিছু কিছু মুহূর্তে বোলাররা চাপে পড়ে যেতে পারে। যেমন- ডেথ ওভারে কিংবা নতুন বলে। চাপের মধ্যেও সে খুব ভালো পারফর্ম করেছে। তাকে শুরুতে বল করতে হয়, শেষেও বল করতে হয়। এটা কঠিন কাজ। তাই তার ফর্মে উত্থান-পতন ঘটতে পারে। তবে আমি পুরোপুরি আত্মবিশ্বাসী যে সাদা বলের ক্রিকেটে সে (ছন্দে) ফিরতে পারবে।’

গেল বছরের মার্চে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে সবশেষ টেস্ট খেলেছিলেন মোস্তাফিজ। আর ডমিঙ্গোর অধীনে বাংলাদেশ এখন পর্যন্ত তিনটি টেস্টে মাঠে নামলেও, কোনোটির একাদশেই জায়গা পাননি তিনি। আফগানিস্তান ও ভারতের বিপক্ষে শেষ দুটি টেস্ট সিরিজে তবুও স্কোয়াডে ছিলেন তিনি, কিন্তু পাকিস্তানের বিপক্ষে তাকে বিবেচনাতেই নেওয়া হয়নি।

ডমিঙ্গো জানালেন, মোস্তাফিজকে নতুন কিছু শিখতে হবে, কাজ করতে হবে টেকনিক নিয়ে, ‘টেস্টের জন্য তাকে বেশ কিছু কাজ করতে হবে। আমি জানি শার্ল ল্যাঙ্গাফেল্ট (সাবেক বোলিং কোচ) তাকে নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করেছিলেন। ওটিসও (গিবসন) তাকে নিয়ে কাজ চালিয়ে যাবেন যেন মোস্তাফিজ ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বিপক্ষে বল ভেতরের দিকে ঢোকাতে পারে। টেস্টের জন্য আবারো জোরালোভাবে বিবেচিত হতে হলে বিভিন্ন টেকনিক্যাল বিষয় নিয়ে তাকে কাজ করতে হবে।’

Comments

The Daily Star  | English

Pahela Baishakh being celebrated

Pahela Baishakh, the first day of Bengali New Year-1431, is being celebrated across the country today with festivity, upholding the rich cultural values and rituals of the Bangalees

2h ago