বাংলাদেশের যুবা পেসারদের আগ্রাসন দেখছে ভারত

দুই প্রান্ত থেকে বোলিং শুরু করা শরিফুল-সাকিবের আগ্রাসনের জবাব খুঁজে পাচ্ছে না ভারতীয়রা। পরে আক্রমণে যোগ দেওয়া আরেক পেসার অভিষেক দাস শিরোপার লড়াইয়ে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে এনে দিয়েছেন প্রথম সাফল্য।
avishek das
ছবি: আইসিসি

প্রথম ওভার মেডেন নিলেন বাঁহাতি শরিফুল ইসলাম। পরের ওভারেও কোনো রান নিতে পারল না ভারত অনূর্ধ্ব-১৯ দল, মেডেন নিলেন ডানহাতি তানজিম হাসান সাকিব। তাদের কল্যাণে যুব বিশ্বকাপের ফাইনালে বাংলাদেশের শুরুটা হয়েছে দুর্দান্ত। দুই প্রান্ত থেকে বোলিং শুরু করা শরিফুল-সাকিবের আগ্রাসনের জবাব খুঁজে পাচ্ছে না ভারতীয়রা। পরে আক্রমণে যোগ দেওয়া আরেক পেসার অভিষেক দাস শিরোপার লড়াইয়ে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে এনে দিয়েছেন প্রথম সাফল্য।

এই প্রতিবেদন লেখার সময়, রবিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দক্ষিণ আফ্রিকার পচেফস্ট্রুমে টস হেরে ব্যাট করছে ভারত। ২০ ওভার শেষে তাদের সংগ্রহ ১ উইকেটে ৬৩ রান। ক্রিজে আছেন ওপেনার যশস্বী জয়সওয়াল ৬২ বলে ৩৭ রানে ও তিলক ভার্মা ৪১ বলে ১৮ রানে। ১৭ বলে ২ রান করে পয়েন্টে ক্যাচ দিয়ে ফিরেছেন আরেক ওপেনার দিব্যানশ সাক্সেনা।

শরিফুল ৪ ওভারে দিয়েছেন ৯ রান। সাকিবের ৫ ওভার থেকেও ভারত নিতে পেরেছে মাত্র ৯ রান। অভিষেক ১৮ রান খরচ করেছেন ৪ ওভারে।

ক্রিকেটের যে কোনো পর্যায়েই বাংলাদেশের পেসারদের আগ্রাসী বোলিংয়ের উদাহরণ বেশ কম। তাই শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচের শুরুতে শরিফুল-সাকিবদের হাতের জাদু নজর কেড়েছে। প্রথম ওভারেই সুইং ও বাউন্সের সমন্বয়ে জয়সওয়ালকে দুবার চমকে দেন শরিফুল। সাকিবও লাইন-লেংথের নিখুঁত প্রদর্শনী দেখিয়েছেন। ফলে রানের জন্য হাঁসফাঁস করতে হয়েছে ভারতের দুই ওপেনারকে। ইনিংসের ১৪তম ডেলিভারিতে গিয়ে দলীয় রানের খাতা খুলতে পারে ভারত।

সাকিব নিজের প্রথম দুই ওভারেই নেন মেডেন। পরের ওভারে একমাত্র রানটি দেন ওয়াইডে। কেবল বোলিংয়ে নয়, বাংলাদেশের পেসারদের শরীরী ভাষাতেও আগ্রাসনের স্পষ্ট ছাপ দেখা গেছে। ভারতীয় ওপেনারদের সঙ্গে বাক্য বিনিময় করেছেন তারা।

আঁটসাঁট বোলিং করা আকবর আলির দল প্রথম সাফল্য পায় সপ্তম ওভারে। বাঁহাতি স্পিনার হাসান মুরাদের পরিবর্তে এই ম্যাচের একাদশে জায়গা করে নেওয়া অভিষেক ফেরান সাক্সেনাকে। একের পর এক ডট বল খেলা এই বাঁহাতি অফ স্টাম্পের বাইরের বল মারতে গিয়ে টাইমিংয়ে গড়বড় করে ফেলেন। ক্যাচ দেন ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে দাঁড়ানো মাহমুদুল হাসান জয়ের হাতে। তখন ভারতের সংগ্রহ মোটে ৯ রান।

অষ্টম ওভারে প্রথম বাউন্ডারি পেয়েছে ভারত। প্রথম ১০ ওভারে ২৩ রান তোলা দলটি পরের ১০ ওভারে তুলেছে ৪০ রান। এসময়ে তারা কোনো উইকেট হারায়নি। তবে রানের চাকাও সচল করতে পারছে না তারা। ৮০ বলে অবিচ্ছিন্ন ৫৪ রানের জুটি গড়ে ব্যাট করছেন জয়সওয়াল ও ভার্মা।

বাংলাদেশ একাদশ:

তানজিদ হাসান তামিম, পারভেজ হোসেন ইমন, মাহমুদুল হাসান জয়, তৌহিদ হৃদয়, শাহাদাত হোসেন দিপু, আকবর আলি (অধিনায়ক), শামিম হোসেন পাটোয়ারি, তানজিম হাসান সাকিব, রকিবুল হাসান, অভিষেক দাস ও শরিফুল ইসলাম।

ভারত একাদশ:

যশস্বী জয়সওয়াল, দিব্যানশ সাক্সেনা, তিলক ভার্মা, ধ্রুব জুরেল, প্রিয়ম গার্গ (অধিনায়ক), সিদ্ধেশ বীর, অথর্ব আনকোলেকার, রবি বিষ্ণই, সুশান্ত মিশ্র, কার্তিক তিয়াগি, আকাশ সিং।

Comments

The Daily Star  | English

Bangladeshi students terrified over attack on foreigners in Kyrgyzstan

Mobs attacked medical students, including Bangladeshis and Indians, in Kyrgyzstani capital Bishkek on Friday and now they are staying indoors fearing further attacks

3h ago