শ্যামলীতে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

রাজধানীর শ্যামলীতে কিডনি হাসপাতালের সামেন র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন নিহত হয়েছেন।
gunfight logo
প্রতীকী ছবি। স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

রাজধানীর শ্যামলীতে কিডনি হাসপাতালের সামেন র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন নিহত হয়েছেন।

র‌্যাবের দাবি, র‌্যাবের টহলরত টিমকে লক্ষ্য করে দুষ্কৃতিকারীরা গুলি ছুড়লে, র‌্যাবও পাল্টা গুলি ছুড়ে। এতে একজনের মৃত্যু হয়।

নিহত ব্যক্তি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ থানার ইছাপুর গ্রামের মৃত বুইদ্দা মিস্ত্রীর ছেলে হানিফ মিয়া ওরফে শাহীন বিশ্বাস (৪৮)।

র‌্যাব ২ এর কোম্পানি কমান্ডার মোহাম্মদ মহিউদ্দিন ফারুকী দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, গতকাল ২৯ ফেব্রুয়ারি রাত ১১টার দিকে রাজধানীর শ্যামলীর কিডনি হাসপাতালের সামনে নিয়মিত ডিউটির অংশ হিসেবে র‍্যাবের টহল টিম তল্লাশি চৌকি বসায়।

তিনি আরও জানান, তল্লাশির সময় আজ ভোররাত আনুমানিক ১২টার দিকে একটি সিএনজিকে থামার সংকেত দিলে তা চেকপোস্টে এসে থামে। সিএজিতে থাকা ড্রাইভারসহ চার যাত্রীকে গাড়ি থেকে নামার জন্য অনুরোধ করা হয়।

‘ড্রাইভারসহ তিন ব্যক্তি নেমে আসলে পেছনের সিটে থাকা অন্যজন না নামতে চাইলে তাকে নামার জন্য বলা হয়। ইতিমধ্যে সিএনজি থেকে নামা তিনজন আচমকা ফাঁকা গুলি ছুড়ে দৌড়ে জাতীয় মানসিক হাসপাতালের সীমানা গ্রিল টপকে পালিয়ে যাওয়ার সময় সিএনজিতে থাকা ব্যক্তিও র‍্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে।’

দুই পক্ষের গোলাগুলিতে এক দুষ্কৃতিকারী গুরুতর আহত হয় উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, ‘গুলিবিদ্ধ ব্যক্তিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেওয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।’

নিহতের মানিব্যাগে থাকা জাতীয় পরিচয় পত্রের সূত্র ধরে গেছে, তিনি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ থানার ইছাপুর গ্রামের মৃত বুইদ্দা মিস্ত্রীর ছেলে হানিফ মিয়া ওরফে শাহীন বিশ্বাস (৪৮)।

ঘটনাস্থল হতে একটি বিদেশি পিস্তল, ৬ রাউন্ড গুলি ও একটি সিএনজি ঢাকা মেট্রো-থ-১১-১০৪০ উদ্ধার করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

Comments