জুভেন্টাস, রোনালদো ও ‘অভিশাপ’

জুভেন্টাসে যোগ দেওয়ার পর মোট ৩৯টি ফ্রি-কিক নিলেও একবারও জালের ঠিকানা খুঁজে পাননি তিনি!
ronaldo
ফাইল ছবি

ইন্টার মিলানের বিপক্ষে নিজের সবশেষ ফ্রি-কিকটি নিয়েছিলেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে ইতালিয়ান সিরি আ স্থগিত হওয়ার আগে। কিন্তু তার শট প্রতিপক্ষের খেলোয়াড়দের তৈরি করা মানবপ্রাচীর ভেদ করতে পারেনি। এর অর্থ দাঁড়ায়, জুভেন্টাসে যোগ দেওয়ার পর মোট ৩৯টি ফ্রি-কিক নিলেও একবারও জালের ঠিকানা খুঁজে পাননি তিনি!

পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী পর্তুগিজ তারকার নামের পাশে এমন পরিসংখ্যান কোনোভাবেই মানানসই নয়।  লম্বা সময় ধরে ডি-বক্সের বাইরের সেট-পিস থেকে রোনালদোর গোল করতে না পারার বিষয়টি অদ্ভুত ঠেকেছে ইতালিয়ান গণমাধ্যমের কাছেও। এমনকি ৩৫ বছর বয়সী ফরোয়ার্ডের এই বিস্ময়কর ব্যর্থতাকে তারা অভিহিত করেছে ‘অভিশাপ’ হিসেবেও।

২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপের পর রিয়াল মাদ্রিদ ছেড়ে জুভেন্টাসে নাম লেখান সময়ের অন্যতম সেরা ফুটবলার রোনালদো, বিশাল অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে। তুরিনে আসার পর সময়টা তার কাটছে দারুণ। এখন পর্যন্ত সকল প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৭৫ ম্যাচে করেছেন ৫৩ গোল। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের আঘাতে আপাতত বন্ধ থাকা চলমান মৌসুমটায় তো আরও দুর্দান্ত ছন্দ দেখাচ্ছিলেন তিনি। সিরি আতে ২২ ম্যাচে করেছেন ২১ গোল, আছেন লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা হওয়ার দৌড়েও।

এবারের আসরে রোনালদোর ২১ গোলের সাতটি এসেছে পেনাল্টি থেকে। অর্থাৎ স্পট-কিক থেকে লক্ষ্যভেদ করতে কোনো বেগ পেতে হচ্ছে না তাকে। কিন্তু সিআর সেভেন খ্যাত তারকা ফ্রি-কিক নিতে গেলেই এলোমেলো হয়ে যাচ্ছে তার নিশানা কিংবা প্রতিপক্ষ গোলরক্ষকরা যেন পরিণত হচ্ছেন চীনের মহাপ্রাচীরে। ফল- জুভদের হয়ে ফ্রি-কিকে গোল করার স্বাদ এখনও অজানা রয়ে গেছে তার।

তুরিনের বুড়ি খ্যাত ইতালির সফলতম ক্লাব জুভেন্টাসের জার্সিতে রোনালদোর নেওয়া ৩৯টি ফ্রি-কিকের ২৫টি প্রচেষ্টা সামনে দাঁড়ানো মানবপ্রাচীরে বাধা পেয়েছে, ১১টি রুখে দিয়েছেন প্রতিপক্ষ গোলরক্ষকরা, দুটি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে গোলপোস্টের বাইরে দিয়ে চলে গেছে আর একটি বারে লেগেছে।

অথচ ইতালিতে আসার আগে ডি-বক্সের বাইরের সেট পিস থেকে গোল আদায়ে বেশ সফলতা দেখিয়েছেন রোনালদো। ফ্রি-কিক থেকে সাবেক ক্লাব স্প্যানিশ পরাশক্তি রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ৩২টি ও ইংলিশ পরাশক্তি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে ১৩টি গোল করেছিলেন তিনি। আর জাতীয় দল পর্তুগালের জার্সিতে ফ্রি-কিক থেকে লক্ষ্যভেদ করেছেন আটবার।

*প্রাক-মৌসুমে অবশ্য ইন্টারের সঙ্গে নির্ধারিত সময়ে ১-১ গোলে ড্র হওয়া প্রীতি ম্যাচে ফ্রি-কিক থেকে গোল করেছিলেন রোনালদো। ম্যাচটি গড়িয়েছিল পেনাল্টিতে এবং সেখানে জিতেছিল তুরিনের বুড়িরা। কিন্তু প্রায় দুই বছর হতে চললেও জুভদের হয়ে প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচে একই কায়দায় জালের ঠিকানা এখনও খুঁজে নেওয়া হয়নি তার।

Comments

The Daily Star  | English

PM assures support to cyclone-hit people

Prime Minister Sheikh Hasina today distributed relief materials among the cyclone-affected people reiterating that her government and the Awami League party will stand by them as long as they need the assistance to rebuild their lives

2h ago