৭০ টাকার স্যালাইন সল্যুশন ৩ হাজার টাকায় বিক্রি

কুমিল্লার কান্দিরপাড় এলাকায় স্যালাইন সল্যুশনের দাম বেশি রাখায় এক ওষুধের দোকান মালিককে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
Comilla_DS_Map
স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

কুমিল্লার কান্দিরপাড় এলাকায় স্যালাইন সল্যুশনের দাম বেশি রাখায় এক ওষুধের দোকান মালিককে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

আজ রবিবার দুপুরে কুমিল্লা জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অমিত দত্ত এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘সোডিয়াম ক্লোরাইড স্যালাইন সল্যুশনের সর্বোচ্চ খুচরা বিক্রি মূল্য ৭০ টাকা। গতকাল রাতে কুমিল্লা মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালের পাশে ইনান ফার্মেসি তিন হাজার টাকায় একটি স্যালাইন বিক্রি করে। অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের দাম বেশি রাখায় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৫২ ধারা অনুযায়ী প্রতিষ্ঠান টিকে নগদ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।’

ভুক্তভোগী গাড়ি চালক জাকির জানান, তার স্ত্রী অসুস্থ। গতকাল রাত ১০টার দিকে তিনি ইনান ফার্মেসি থেকে তিন হাজার টাকায় সোডিয়াম ক্লোরাইড স্যালাইন সল্যুশন কেনেন। এর প্রকৃত দাম ৭০ টাকা জানার পরে তিনি টাকা ফেরত নিতে যান। সে সময় দোকান কর্মচারীরা তাকে লাঞ্ছিত করে। বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হলে প্রশাসন তাৎক্ষণিক অভিযান চালায়।

সূত্র জানায়, জাকির কেনা সোডিয়াম ক্লোরাইড স্যালাইন সল্যুশনটি ছিল বিক্রি অযোগ্য সরকারি হাসপাতালের।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের পরিচালক ডা. মজিবুর রহমান বলেন, ‘সরকারি হাসপাতালগুলোতে গণস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের সোডিয়াম ক্লোরাইড স্যালাইন সল্যুশন রোগীদের বিনা মূল্যে দেওয়া হয়। কিন্তু অপ্রিয় হলেও সত্য, কিছু অসাধু কর্মচারীর যোগসাজশে তা বাহিরে চলে যায়।’

সরকারি হাসপাতালের স্যালাইন কীভাবে বাইরে গেল সে প্রসঙ্গে কথা বলতে কুমিল্লা জেলা সিভিল সার্জন ডা. নেয়াতুজ্জামানের মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তিনি সাড়া দেননি।

Comments