জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঢাকায় আসা-যাওয়া নিষেধ

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঢাকায় ঢুকতে বা বেরোতে পারবে না। এজন্য রাজধানীর প্রবেশমুখগুলোতে নিরাপত্তা জোরদার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঢাকায় ঢুকতে বা বেরোতে পারবে না। এজন্য রাজধানীর প্রবেশমুখগুলোতে নিরাপত্তা জোরদার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)। 

ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার মীর রেজাউল আলম দ্য ডেইলি স্টারকে আজ রোববার জানান, সরকারের নির্দেশনা মতো ঢাকার ১০টি প্রবেশ ও নির্গমণ পয়েন্টে চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। রোজার ঈদ পর্যন্ত এসব চেকপোস্ট কার্যকর থাকবে।

রেজাউল আলম বলেন, মোটরসাইকেল, সিএনজি চালিত অটোরিকশা এবং হিউম্যান হলারের চলাচল সীমিত করা হয়েছে। যাতে করে দূরের পথে কেউ না যেতে পারে।

আমরা এসব ব্যবস্থা নিয়েছি যাতে করে ঈদের সময় কেউ অন্যান্য জেলা কিংবা নিজেদের গ্রামে করোনাভাইরাস ছড়াতে না পারে, বলেন তিনি।

রেজাউল আলম বলেন, যদি জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ দূরের যাত্রা করে, তবে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কতদিন পর্যন্ত এটি কার্যকর থাকবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আপাতত ঈদ পর্যন্ত চেকপোস্ট থাকবে। পরে পরিস্থিতি এবং সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

তবে জরুরি সেবা ও পণ্যপরিবহণ এই নিষেধাজ্ঞার বাইরে বলে জানিয়েছেন ডিএমপি কর্মকর্তা।

নিয়ন্ত্রিত চলাচলের ব্যাপারে নগরবাসীর আন্তরিক সহযোগিতা চেয়েছে ডিএমপি।

গত ১৪ মে মন্ত্রিসভা এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছিল, ১৭ মে থেকে ২৮ মে পর্যন্ত জনগণের চলাচল সীমিত থাকবে। এই সময়ে এক জেলা থেকে অন্য জেলায় বা এক উপজেলা থেকে আরেক উপজেলায় কেউ চলাচল করতে পারবে না। আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সহায়তায় স্থানীয় প্রশাসন এটি নিশ্চিত করবে।

 

 

Comments

The Daily Star  | English

8 killed as gunmen attack churches, synagogues in Russia

Gunmen on Sunday attacked synagogues and churches in Russia's North Caucasus region of Dagestan, killing a priest, six police officers, and a member of the national guard, security officials said

1h ago