শীর্ষ খবর

সিভিল সার্জন অফিসের ৬ কর্মচারীসহ নোয়াখালীতে আরও ৩৬ জনের করোনা শনাক্ত

সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ৬ কর্মচারীসহ নোয়াখালীতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আরও ৩৬ জন। এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৬৩ জনে।

সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ৬ কর্মচারীসহ নোয়াখালীতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আরও ৩৬ জন। এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৬৩ জনে।

বৃহস্পতিবার বিকেলে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন নোয়াখালী সিভিল সার্জন ডা. মো মোমিনুর রহমান।

সিভিল সার্জন বলেন, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আসা রিপোর্টে আমাদের কার্যালয়ের ৬ জন কর্মচারীর নমুনা পজিটিভ এসেছে। অফিসের সব কর্মকর্তা ও কর্মচারীকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, অফিসের দাপ্তরিক সব কাজ বাসা থেকে করা হবে। অফিস লকডাউনের মতো থাকবে।

জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ৬ জন ছাড়াও নতুন আক্রান্তদের মধ্যে কবিরহাটে ১৮ জন, বেগমগঞ্জে ৬ জন, সুবর্ণচরে ৩ জন, কোম্পানীগঞ্জে ২ জন ও সদরে ১ জন রয়েছেন।

কবিরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. ফজলুল হক বাকের অপু জানান, উপজেলায় আক্রান্ত ১৮ জনের মধ্যে বাটইয়া ইউনিয়নে ১০, নরোত্তমপুরে ৭ ও ঘোষবাগ ইউনিয়নে একজন রয়েছেন।

তিনি বলেন, আক্রান্তদের বাড়ি লকডাউন ঘোষণা করে তাদের শারীরিক অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে আইসোলেশনের ব্যবস্থা করা হবে।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. সেলিম জানান,

কোম্পানীগঞ্জের সিরাজপুর ইউনিয়নে একজন ও চরপাবর্তী ইউনিয়নে একজন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। উপজেলায় মোট করোনা আক্রান্ত ৭ জন।

সুবর্ণচর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সায়েলা সুলতানা ঝুমা বলেন, উপজেলায় নতুন করে আরও তিন জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। যার মধ্যে চরজব্বার ইউনিয়নের একজন ও চরক্লার্কের দুজন রয়েছেন। এখন পর্যন্ত উপজেলায় মোট আক্রান্ত ৮ জন।

সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, জেলায় এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন চার জন। সুস্থ হয়েছেন ২৭ জন।

 

Comments

The Daily Star  | English