বিদেশি শিক্ষার্থীদের দেশত্যাগের নির্দেশনা থেকে সরলো ট্রাম্প প্রশাসন

যুক্তরাষ্ট্রের কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম পুরোপুরি অনলাইনে চালু হলে, ওই প্রতিষ্ঠানের বিদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাষ্ট্র ছাড়ার সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে ট্রাম্প প্রশাসন।
ছবি: এপি ফাইল ফটো

যুক্তরাষ্ট্রের কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম পুরোপুরি অনলাইনে চালু হলে, ওই প্রতিষ্ঠানের বিদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাষ্ট্র ছাড়ার সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে ট্রাম্প প্রশাসন।

মঙ্গলবার, প্রশাসনের ওই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের মামলার শুনানিতে বিচারক অ্যালিসন ডি. বারোজ মার্কিন সরকার ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলো এ নিয়ে সমঝোতায় পৌঁছেছে বলে জানান।

রয়টার্স জানায়, ওই শুনানি চার মিনিটেরও কম সময় ধরে চলেছে।

এদিকে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি বিভাগের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ক্লাস পুরোপুরি অনলাইনে চালু হলে বিদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাষ্ট্রে থাকার ব্যাপারে বিধিনিষেধ নিয়ে প্রশাসন আগামীতে একটি নোটিশ জারির পরিকল্পনা করছে।

এ বিষয়ে মন্তব্যের জন্য আইসিই ও মার্কিন বিচার বিভাগের কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা কেউই তাৎক্ষণিক মন্তব্য করতে রাজি হয়নি বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

যুক্তরাষ্ট্রের কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে প্রায় ১০ লাখেরও বেশি বিদেশি শিক্ষার্থী পড়াশোনা করে। তাদের অধিকাংশই সম্পূর্ণ টিউশন ফি দিয়ে থাকে, যা মার্কিন বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর আয়ের অন্যতম উৎস।

গত ৬ জুলাই যুক্তরাষ্ট্রের ইমিগ্রেশন ও কাস্টমস এনফোর্সমেন্ট (আইসিই) বিভাগ জানায়, আগামী শরৎকালীন সেমিস্টারের শিক্ষা কার্যক্রম পুরোপুরি অনলাইনে চালু হলে, শিক্ষার্থী ভিসায় অবস্থানরতদের অবশ্যই যুক্তরাষ্ট্র ছাড়তে হবে অথবা অন্য কোনো প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে হবে।

এর দুদিন পর, ৮ জুলাই, ট্রাম্প প্রশাসনের ওই সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে মামলা করে যুক্তরাষ্ট্রের দুই শীর্ষ বিশ্ববিদ্যালয়, হার্ভার্ড ও ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজি (এমআইটি)।

 

Comments

The Daily Star  | English

Death came draped in smoke

Around 11:30pm, there were murmurs of one death. By then, the fire had been burning for over an hour.

6h ago