করোনা পরীক্ষার ভুয়া তথ্য উপস্থাপন

সাহাবুদ্দিন মেডিকেলের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র উদ্ভাবিত ‘অ্যান্টিবডি টেস্ট কিট’ দিয়ে করোনাভাইরাস পরীক্ষার ভুয়া তথ্য উপস্থাপনের কারণে সাহাবুদ্দিন মেডিকেলের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র।
Gonoshasthaya Kendra and Shahbuddin Medical.jpg
ছবি: সংগৃহীত

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র উদ্ভাবিত ‘অ্যান্টিবডি টেস্ট কিট’ দিয়ে করোনাভাইরাস পরীক্ষার ভুয়া তথ্য উপস্থাপনের কারণে সাহাবুদ্দিন মেডিকেলের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র।

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ‘জিআর কোভিড-১৯ র‌্যাপিড ডট ব্লট অ্যান্টিবডি টেস্ট’ কিট প্রকল্পের সমন্বয়কারী ডা. মুহিব উল্লাহ খোন্দকার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র উদ্ভাবিত ‘জিআর কোভিড-১৯ র‌্যাপিড ডট ব্লট অ্যান্টিবডি টেস্ট’ কিট এখন পর্যন্ত বাংলাদেশ সরকারের অনুমোদন পায়নি, কোনো বিপণন হয়নি এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) ছাড়া অন্য কোনো প্রতিষ্ঠানকে করোনা পরীক্ষার জন্য বা ট্রায়ালের জন্য দেওয়া হয়নি।

গত ১১ জুন প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ বিষয়ে সবাইকে সতর্ক করা হয়েছিল বলেও জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এই কিট দিয়ে দেশের বিভিন্ন জায়গায় করোনা পরীক্ষা করা হচ্ছে বলে যে খবর বেরিয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা। আমরা মনে করছি, এটি কোভিড-১৯ জনিত সারাবিশ্ব তথা দেশের এই মহাদুর্যোগে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের এই উদ্ভাবনীর বিরুদ্ধে একটি ষড়যন্ত্র। আমরা এর তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

আমদের আইনবিভাগ সাহাবুদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

আমরা গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের অ্যান্টিবডি টেস্ট এবং কিট সংক্রান্ত সব প্রকার নীতিমালার প্রতি শ্রদ্ধাশীল।

এ সংক্রান্ত কোনোপ্রকার কিট পরীক্ষার সঙ্গে আমাদের কোনো সম্পর্ক নেই। কেউ যদি এ ধরণের কোনো তথ্য কোথাও পান, অনুগ্রহ করে আমাদের, স্থানীয় আইন প্রয়োগকারী সংস্থা বা স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষকে জানানোর অনুরোধ করছি।

Comments

The Daily Star  | English

Another life lost in BCL-student clash in Ctg, death toll now 3

One more person, who sustained critical injuries, was killed during clashes between the quota protestors and Chhatra League men in Chattogram, raising the total number of deaths to three

26m ago