পদত্যাগকারী মহাপরিচালকের বিচার ও স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি বিএনপির

পদত্যাগকারী মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদের বিচার ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকের পদত্যাগ দাবি করেছে বিএনপি।
Mirza Fakhrul
মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ফাইল ফটো

পদত্যাগকারী মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদের বিচার ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকের পদত্যাগ দাবি করেছে বিএনপি।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এই দাবি করেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা মনে করি এখানে শুধু মহাপরিচালকের পদত্যাগই নয়, তার বিচার ও একই সঙ্গে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগ করা উচিত।’

তিনি আরও বলেন, ‘স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক পদত্যাগ করেছেন এবং শোনা যাচ্ছে যে, তার পদত্যাগপত্র গ্রহণ করা হবে। আসলে তাকে তো বরখাস্ত করা উচিত ছিল। শুধু স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালকই নন এর সঙ্গে যারা যারা জড়িত আছেন, তারা জনগণকে ভুল তথ্য দিয়েছেন। এর দায় অবশ্যই সরকারের ওপরে বর্তায়।’

জিকেজি ও রিজেন্ট হাসপাতালের প্রতারণার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে রিজেন্ট হাসপাতালের চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর উপস্থিতি নিয়েও প্রশ্ন তুলেন বিএনপি মহাসচিব।

‘২০১৪ সাল থেকেই রিজেন্ট হাসপাতালের লাইসেন্স অবৈধ জানা সত্ত্বেও হাসপাতালটিতে করোনা পরীক্ষা ও চিকিৎসার জন্য সরকার কিভাবে চুক্তি করলো? ওই চুক্তি অনুষ্ঠানে খোদ স্বাস্থ্যমন্ত্রী, স্বাস্থ্য সচিবসহ কয়েকজন সচিব ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালকসহ আরও অনেকে উপস্থিতি ছিলেন বলে আমরা ইলেক্ট্রনিক মিডিয়াতে দেখতে পেরেছি। এই ধরনের চুক্তি সই অনুষ্ঠানে মন্ত্রীর উপস্থিতি থাকার প্রটোকল নেই’ যোগ করেন তিনি।

গণমাধ্যমে প্রকাশিত দুর্নীতি-অব্যবস্থাপনার চিত্র তুলে ধরে বিএনপি নেতা বলেন, ‘দুর্নীতি ও অব্যবস্থাপনা এতো চরমে পৌঁছেছে যে, অধিকাংশ করোনা হাসপাতালের লাইসেন্সের মেয়াদ নেই বলে জানা গেছে। করোনা প্রার্দুভাবের শুরু থেকেই দুর্নীতি শুরু হয়েছে। সরকারের আর্শীবাদপুষ্টদের কাছে করোনা যেন আর্শীবাদ রূপে আবির্ভূত হয়েছে। স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী যেমন পিপিই, মাস্ক, ওষুধ সরবারহ দিয়ে শুরু বলা যায়।’

তার মতে, ‘করোনা মহামারির এই সংকটকালে পুরো জাতি যখন ভীষণভাবে উদ্বিগ্ন, যখন প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন, যখন সরকারি হিসাব মতেই দৈনিক প্রায় ৪০ জন করে করোনা রোগী মারা যাচ্ছেন তখন স্বাস্থ্যখাতের অব্যবস্থাপনা ও দায়িত্বহীনতা ক্ষমার অযোগ্য অপরাধের শামিল।’

‘স্বাস্থ্যখাতের জবাবদিহিতাহীন দুর্নীতির দায় সরকারকেই বহন করতে হবে’ বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

তিনি মনে করেন, ‘আজকে এটা জাতির সামনে পরিষ্কার হয়ে গেছে যে শুধুমাত্র দলীয় দৃষ্টিকোণ থেকে সরকার এই ভয়াবহ মহামারি মোকাবিলা করার সিদ্ধান্ত নেওয়ার ফলেই আজকে এই ভয়াবহ পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে।

‘সরকারের পক্ষে সমস্যার সমাধান করা সম্ভব নয়’ বলেও মনে করেন মির্জা ফখরুল।

Comments

The Daily Star  | English
MP Azim's name left out of condolence motion

Pillow used to smother MP Azim: West Bengal CID

Bangladeshi MP Anwarul Azim Anar was smothered with a pillow soon after he entered a flat in New Town near Kolkata, an official of West Bengal CID said today

1h ago