খেলা

ছন্দ হারিয়ে ফেলেছেন রোনালদোরা!

আর একটি জয় পেলেই সিরি আর শিরোপা জয়ের উল্লাসে মাতবে জুভেন্টাস। আগের দিনই কাজটা সেরে ফেলার বড় সুযোগ ছিল তাদের। কিন্তু উদিনেসের বিপক্ষে হেরেই যায় তারা। তাতে প্রশ্ন উঠেছে অনেক। তবে টানা খেলার ধকলের কারণে দলটি ছন্দ ও আকার হারিয়ে ফেলেছেন বলে মনে করেন দলের প্রধান কোচ মাউরিজিও সারি।
ছবি: এএফপি

আর একটি জয় পেলেই সিরি আর শিরোপা জয়ের উল্লাসে মাতবে জুভেন্টাস। আগের দিনই কাজটা সেরে ফেলার বড় সুযোগ ছিল তাদের। কিন্তু উদিনেসের বিপক্ষে হেরেই যায় তারা। তাতে প্রশ্ন উঠেছে অনেক। তবে টানা খেলার ধকলের কারণে দলটি ছন্দ ও আকার হারিয়ে ফেলেছেন বলে মনে করেন দলের প্রধান কোচ মাউরিজিও সারি।

আগের দিন উদিনেসের বিপক্ষে এগিয়ে থাকার পর ১-২ গোলের ব্যবধানে হেরে যায় রোনালদোরা। শীর্ষে থাকার পর চলতি মৌসুমে এ নিয়ে মোট ১৮ পয়েন্ট খোয়ালো জুভেন্টাস। শেষ পাঁচ ম্যাচে এ নিয়ে চারটি ম্যাচে পয়েন্ট হারালো তারা। দুটি ম্যাচে তো হারই দেখতে হলো। সংবাদ সম্মেলনে এর কারণ জানতে চাইলে তার ব্যাখ্যা করেন কোচ, 'ইদানীং আমরা আমাদের ছন্দ ও কাঠামো হারিয়ে ফেলেছি।'

করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট বিরতির পর টানা খেলার কারণে এমনটা হয়েছে বলে মনে করেন সারি, 'এই মুহূর্তে ভারসাম্য খুঁজে পাওয়া দুষ্কর, কারণ প্রতিটি দলের সবাই ক্লান্ত হয়ে পড়েছে। আমরা এ কারণেও তেমন আক্রমণাত্মক নই। আমি বিশ্বাস করি যে এই মুহূর্তে আগ্রাসনের চেয়ে কাঠামোটি আরও গুরুত্বপূর্ণ। এটি শারীরিকের চেয়ে মানসিক অবসন্নতা। গোল খাওয়ার পর আমরা ছন্দ হারিয়েছি।'

লকডাউনের পর খেলার ধরণই পাল্টে গিয়েছে বলে মনে করেন জুভেন্টাস কোচ, 'লকডাউনের পরে ম্যাচগুলি এত অদ্ভুত, কারণ জড়তা এত দ্রুত পরিবর্তিত হয়। আমাদের অবশ্যই এই সূচিগুলো থেকে শিখতে হবে এবং আমাদের কাঠামো ধরে রাখার চেষ্টা করতে হবে।'

'আমাদের বিরুদ্ধে ১২টি পেনাল্টিও দেওয়া হয়েছে, এটি বড় ক্লাবের বিপক্ষে এটা অস্বাভাবিক। সাধারণভাবে আরও স্পট-কিকও রয়েছে, এটি সর্বকালের রেকর্ড, এমনকি আমরাও অন্যদের তুলনায় অনেক বেশি পেনাল্টি পেয়েছি।' - ব্যাখ্যা দিয়ে আরও বলে এ কোচ।

উদিনেসের বিপক্ষে হারের ব্যাখ্যাও দেন তিনি, 'প্রথমার্ধের আমাদের দুর্দান্ত পারফরম্যান্স ছিল। সমতাসূচক গোল খাওয়ার পর যে কোনো মূল্যে জিততে চেয়েছিলাম, যে কারণেই আমরা খুব অগোছালো ও আলগা হতে শুরু করি এবং হেরে যাই। জয়ের আকাঙ্ক্ষা যা আরও বিপজ্জনক পরিস্থিতি তৈরি করে ফেলে এবং আমরা ৯৩তম মিনিটে গোল খেয়ে হেরে গেলাম কারণ আমরা যে কোনো মূল্যে জয়ী হতে চেয়েছিলাম।'

এছাড়া দলের গুরুত্বপূর্ণ বেশ কিছু খেলোয়াড়ের অনুপস্থিতিও তাদের ভুগিয়েছে বলে জানান সারি, 'জিওর্জিও কিয়েলিনি কার্যত এ মৌসুমে বাইরে চলে গিয়েছে এবং লোকেরা বুঝতে পারে না যে তার অভিজ্ঞতা এবং চরিত্রটি আমরা কীভাবে মিস করেছি। লিওনার্দো বনুচ্চিও আজ বরখাস্ত ছিল, মিরালেম পিয়ানিজের কিছু সমস্যা ছিল, তবে গুরুতর কিছুই নয়। গঞ্জালো হিগুয়েইন বাইরে আছেন, সে রক্ষণাত্মক দলের বিরুদ্ধে কার্যকরী হয়ে উঠতে পারতো।'

Comments

The Daily Star  | English

'Why haven't my parents come to see me?'

9-year-old keeps asking while being treated at burn institute

23m ago