সীমান্তে নতুন করে সেনা মোতায়েন নয়, অঙ্গীকার ভারত ও চীনের

হিমালয় সীমান্তে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় নতুন করে সেনা মোতায়েন না করার অঙ্গীকার করেছে ভারত ও চীন।
INDIA-CHINA.jpg
লেহতে স্থাপিত ভারতীয় বিমানঘাঁটিতে সামরিক বিমান থেকে নামছেন সেনা সদস্যরা। ছবি: রয়টার্স

হিমালয় সীমান্তে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় নতুন করে সেনা মোতায়েন না করার অঙ্গীকার করেছে ভারত ও চীন।

গতকাল নয়াদিল্লি থেকে পাঠানো এক যৌথ বিবৃতিতে জানানো হয়, দুই পক্ষের ‘ভুল বোঝাবুঝি ও ভ্রান্ত ধারণা এড়াতে’ এবং ‘এককভাবে সীমান্তে পরিস্থিতি পরিবর্তন করা থেকে বিরত থাকতে’ একমত হয়েছে দুই দেশ।

সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট জানায়, সোমবার দু’দেশের ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তারা সীমান্ত নিয়ে আলোচনার জন্য ষষ্ঠবারের মতো বৈঠকে বসেন।

আলোচনায় সীমান্তে নতুন করে সেনা মোতায়েন না করা ও পরিস্থিতি জটিল করে তুলতে পারে এমন কোনো পদক্ষেপ না নেওয়ার বিষয়ে একমত হয়েছে দুই দেশ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, এবারই প্রথম ভারত-চীন সীমান্ত নিয়ে সামরিক পর্যায়ের কোনো বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে ভারতীয় দলের নেতৃত্বে ছিলেন লেহতে ভারতীয় সেনাবাহিনীর ১৪ কর্পস বাহিনীর কমান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল হরিন্দর সিং। চীনা দলের নেতৃত্ব দেন দক্ষিণ শিনজিয়াং সামরিক অঞ্চলের কমান্ডার মেজর জেনারেল লিউ লিন।

জুন মাসে লাদাখ সীমান্তে দুই দেশের সেনাদের মধ্যে সংঘর্ষে ২০ জন ভারতীয় সেনা নিহতের পরই দুই দেশের মধ্যে উত্তেজনা বাড়তে শুরু করে।

এ মাসের শুরুতে ‘অবৈধভাবে বিতর্কিত সীমান্ত অতিক্রম’ ও টহল দেওয়ার সময় ‘উসকানিমূলক’ গুলি চালানোর পাল্টাপাল্টি অভিযোগ করে বিবৃতি দিয়েছে দুই পারমাণবিক শক্তিধর প্রতিবেশী ভারত ও চীন।

Comments