চলে গেলেন একুশে পদকপ্রাপ্ত লেখক রশীদ হায়দার

একুশে পদকপ্রাপ্ত লেখক রশীদ হায়দার মারা গেছেন। আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ঢাকায় তার বাসায় রশীদ হায়দারের মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিল ৮০ বছর।
রশীদ হায়দার। ছবি: সংগৃহীত

একুশে পদকপ্রাপ্ত লেখক রশীদ হায়দার মারা গেছেন। আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ঢাকায় তার বাসায় রশীদ হায়দারের মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিল ৮০ বছর।

তার পরিবারের সদস্যরা দ্য ডেইলি স্টারকে জানিয়েছেন, রশীদ হায়দার বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। আজ দুপুরে (বাদ জোহর) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ প্রাঙ্গণে রশীদ হায়দারের নামাজে জানাজা শেষে আজিমপুর কবরস্থানে দাফন করা হবে।

১৯৪১ সালের ১৫ জুলাই পাবনার দোহাপাড়া গ্রামে রশীদ হায়দারের জন্ম হয়। তার ডাক নাম দুলাল। তিনি বাংলা একাডেমির পরিচালক ও নজরুল ইনস্টিটিউটের নির্বাহী পরিচালক ছিলেন।

রশীদ হায়দারের উল্লেখযোগ্য বইয়ের মধ্যে রয়েছে— স্মৃতি ৭১ (১৩টি খণ্ড), শহীদ বুদ্বিজীবী কোষগ্রন্থ, মুক্তিযুদ্ধের নির্বাচিত গল্প। বিভিন্ন বিষয়ে ৭০টির বেশি বই রয়েছে তার।

১৯৮৪ সালে গুণী এই লেখক বাংলা একাডেমি পুরস্কার পান। একুশে পদক পান ২০১৪ সালে। এ ছাড়া, অগ্রণী ব্যাংক শিশু সাহিত্য পুরস্কার ও হুমায়ুন কাদির পুরস্কার পেয়েছেন তিনি।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াকালে তিনি সাংবাদিকতাকে পেশা হিসেবে নিয়েছিলেন। রশীদ হায়দার নাগরিক নাট্যসম্প্রদায়ের প্রতিষ্ঠাতাদের একজন।

অভিনেতা আবুল হায়াত দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘এক এক করে প্রিয়জনরা হারিয়ে যাচ্ছে। রশীদ হায়দার নাগরিক এর প্রতিষ্ঠার সময়ের সদস্য। কত স্মৃতি তার সঙ্গে!’

নাট্যজন মামুনুর রশীদ বলেন, ‘রশীদ হায়দারের মৃত্যুর খবরটি শোনার পর থেকে অসম্ভব খারাপ লাগছে। তার আত্মার শান্তি কামনা করছি।’

রশীদ হায়দারের স্ত্রীর নাম আনিসা আখতার ঝরা। তার দুই কন্যা— হেমন্তী হায়দার ও শাওন্তী হায়দার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক।

আরও পড়ুন:

আশিতে পা রাখলেন রশীদ হায়দার

Comments

The Daily Star  | English

‘Will implement Teesta project with help from India’

Prime Minister Sheikh Hasina has said her government will implement the Teesta project with assistance from India and it has got assurances from the neighbouring country in this regard.

4h ago