আন্তর্জাতিক
করোনাভাইরাস

গত ৩ মাসে প্রথম ভারতে এক দিনে শনাক্ত ৫০ হাজারের কম

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৪৬ হাজার ৭৯০ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। গত প্রায় তিন মাসে এই প্রথম দেশটিতে এক দিনে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৫০ হাজারের নিচে নামল। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৭৫ লাখ ৯৭ হাজার ৬৩ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়তে।
দিল্লিতে করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হচ্ছে। ১৭ অক্টোবর ২০২০। ছবি: রয়টার্স

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৪৬ হাজার ৭৯০ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। গত প্রায় তিন মাসে এই প্রথম দেশটিতে এক দিনে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৫০ হাজারের নিচে নামল। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৭৫ লাখ ৯৭ হাজার ৬৩ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়তে।

একই সময়ে মারা গেছেন আরও ৫৮৭ জন। করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছেন এক লাখ ১৫ হাজার ১৯৭ জন। আর গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৬৯ হাজার ৭২০ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ৬৭ লাখ ৩৩ হাজার ৩২৮ জন। ভারতে মোট শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৮ দশমিক ৬৩ শতাংশ।

আজ মঙ্গলবার ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সবচেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে মহারাষ্ট্রে। এরপর রয়েছে অন্ধ্র প্রদেশ, কর্ণাটক, তামিল নাড়ু, উত্তর প্রদেশ ও দিল্লিতে। দেশটিতে মোট শনাক্ত ৭৫ লাখ ৯৭ হাজার ৬৩ জনের মধ্যে বর্তমানে আক্রান্ত রয়েছেন সাত লাখ ৪৮ হাজার ৫৩৮ জন।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, এর আগে গত ২৩ জুলাই দেশটিতে এক দিনে ৪৫ হাজার ৭২০ জনকে শনাক্ত করা হয়েছিল। এরপর গত প্রায় তিন মাসে এবারই প্রথম এক দিনে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৫০ হাজারের কম হলো। সম্প্রতি ভারত সরকার বলেছে, যেহেতু সেপ্টেম্বরের মধ্যবর্তী সময়ে দেশটিতে দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা ছিল ৯০ হাজারের বেশি, আর বর্তমানে সেটি পৌঁছেছে ৫০-৬০ হাজারের ঘরে, তাই দেশটিতে করোনাভাইরাসের ‘পিক’ (সংক্রমণের চূড়ান্ত সময়) পার হয়ে গেছে।

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিকেল রিসার্চের তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে ১০ লাখ ৩২ হাজার ৭৯৫টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। আর এখন পর্যন্ত পরীক্ষা করা হয়েছে নয় কোটি ৫১ লাখ ১৬ হাজার ৭৭১টি নমুনা।

উল্লেখ্য, জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টারের তথ্য অনুযায়ী, সংক্রমণের দিক থেকে বর্তমানে বিশ্বে ভারতের অবস্থান দুই নম্বরে। ভারতের আগে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ও পরে ব্রাজিল।

জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন চার কোটি তিন লাখ ৪৬ হাজার ৭৮ জন এবং মারা গেছেন ১১ লাখ ১৭ হাজার ৫৭৭ জন। আর সুস্থ হয়েছেন দুই কোটি ৭৬ লাখ ২৮ হাজার ৮৩৪ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Extreme heat sears the nation

The scorching heat continues to disrupt lives across the country, forcing the authorities to close down all schools and colleges till April 27.

7h ago