প্রেম, ভালোবাসা, বিরহের গানে অমর শিল্পীর প্রয়াণ দিবস

মান্না দে’র নামটা মনে আসলেই প্রথমে মনের ভেতর গুনগুন করে ‘কফি হাউসের সেই আড্ডাটা আজ আর নেই’ গানটির কথা। সব বয়সী মানুষের প্রিয় একটা গান।
মান্না দে। ছবি: সংগৃহীত

মান্না দে’র নামটা মনে আসলেই প্রথমে মনের ভেতর গুনগুন করে ‘কফি হাউসের সেই আড্ডাটা আজ আর নেই’ গানটির কথা। সব বয়সী মানুষের প্রিয় একটা গান।

এই গানের গীতিকার গৌরীপ্রসন্ন মজুমদার আর সুরকার সুপর্ণকান্তি ঘোষ। জীবনের প্রতিটি অনুভূতির সঙ্গে মান্না দে’র গানের কথার কেমন জানি একটা যোগ রয়েছে।

ভারতীয় উপমহাদেশের অন্যতম একজন সঙ্গীত শিল্পী তিনি। গানের জগতে সর্বকালের সেরা গায়ক বলা হয় তাকে। আজ এই শিল্পীর প্রয়াণ দিবস। ২০১৩ সালের ২৪ অক্টোবর মৃত্যুবরণ করেন তিনি। এই কিংবদন্তি শিল্পীর চলে যাওয়ার সাত বছর হয়ে গেল।

গানে অসামান্য অবদানের জন্য মোট তিন বার জাতীয় পুরস্কার পেয়েছেন মান্না দে। ১৯৭১ সালে ভারত সরকার তাকে ‘পদ্মশ্রী’ পুরস্কার দেয়, ২০০৫ সালে ‘পদ্মভূষণ’ সম্মানে সম্মানিত করে। ২০০৭ সালে তিনি পান ‘দাদা সাহেব ফালকে’ সম্মান। ২০১১ সালে রাজ্য সরকার তাকে ‘বঙ্গ বিভূষণ’ সম্মানে সম্মানিত করে।

১৯১৯ সালের ১ মে জন্ম নেওয়া শতবর্ষ পার হওয়া মান্না দে’র আসল নাম প্রবোধ চন্দ্র দে। সঙ্গীতে তার প্রথম হাতে খড়ি কাকা সঙ্গীতাচার্য কৃষ্ণ চন্দ্র দে’র কাছে। ১৯৪২ সালে কাকা কৃষ্ণ চন্দ্র দে’র হাত ধরেই মুম্বাই আসেন তিনি। কাকার সংগীত পরিচালনায় ‘তাম্মানা’ ছবিতে প্রথম গান করলে তা জনপ্রিয় হয়। ১৯৫০ সালে শচীন দেব বর্মণের সংগীত পরিচালনায় ‘মশাল’ ছবিতে ‘ওপার গগন বিশাল’ নামে একক গান গাওয়ার সুযোগ পান। এরপর তাকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। একের পর এক বাংলা, হিন্দি ও মারাঠি ছবিতে গান গাওয়া শুরু করেন তিনি। গান গাওয়ার পাশাপাশি সঙ্গীত পরিচালনাও করেন। সঙ্গীত জীবনে প্রায় সাড়ে তিন হাজার গান রেকর্ড করেছেন মান্না দে।

অনেক ধরনের গান গাইলেও প্রেম, ভালোবাসা আর বিরহের গানে অমর হয়ে আছেন মান্না দে। ভালোবাসার সব ধরনের অনুভূতি নিয়ে গান গেয়েছেন তিনি। তেমনি কিছু গানের মধ্যে রয়েছে – ‘শুধু একদিন ভালোবাসা/ মৃত্যু যে তারপর/ তাও যদি পাই, আমি তাই চাই/ চাই না বাঁচতে আমি প্রেমহীন হাজার বছর। কিংবা  ‘এত ভালোবেসে তবু মিটল না সাধ/ কতটুকু বলো এ জীবন/ হায় প্রেম যে অগাধ।’  কবি বটকৃষ্ণ দে’র লেখা ‘ওগো প্রেম, তুমি প্রথমের থেকেও প্রথমা/ তোমাকে ভালো না বাসলে মন পাওয়া যায় না/ সুরে না ভাসলে গান গাওয়া যায় না।’

৮৭ বছর বয়সে মান্না দে যখন শেষবার মঞ্চে গেয়েছিলেন, তখন অনেকগুলো প্রেমের গান গেয়েছিলেন। তার গাওয়া কিছু প্রেমের গানের কথা তুলে ধরা হলো-

‘যদি কাগজে লেখো নাম, কাগজ ছিঁড়ে যাবে’, ‘ক’ফোঁটা চোখের জল ফেলেছো যে তুমি ভালোবাসবে?’, ‘জানি তোমার প্রেমের যোগ্য আমি তো নই’, ‘খুব জানতে ইচ্ছে করে’, ‘যদি হিমালয়-আল্পসের সমস্ত জমাট বরফ একদিন গলেও যায়, তবুও তুমি আমার’, ‘আমি আজীবন শুধু ভুল করে গেছি, রাত্রির কাছে সূর্য চেয়েছি’, ‘গভীর হয়েছে রাত, পৃথিবী ঘুমোয়, হয়তো তুমিও গেছো ঘুমিয়ে, শুধু আমার দু’চোখে ঘুম আসে না’, ‘দীপ ছিল, শিখা ছিল, শুধু তুমি ছিলে না বলে আলো জ্বলল না’, ‘ভালোবাসার গঙ্গা বুঝি গেল রে হারায়ে’, ‘হয়তো তোমারি জন্য, ভালোবাসবার কোনো দিনক্ষণ নাই’।

Comments

The Daily Star  | English

Sugar market: from state to private control

Five companies are enjoying an oligopoly in the sugar market, which was worth more than Tk 9,000 crore in fiscal year 2022-23, as they have expanded their refining capacities to meet increasing demand.

1h ago