মেসিকে কখনো প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে দেখিনি: রোনালদো

ম্যাচশেষে অবশ্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার নয়, দুজনের মধ্যকার বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের উপরই জোর দিয়েছেন রোনালদো।
messi and ronaldo
ছবি: টুইটার

উত্তেজনার আবহ যতটা ছিল, তার পুরোটাই মূলত ছিল লিওনেল মেসি ও ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে নিয়ে। সময়ের দুই সেরা ফুটবল তারকার দ্বৈরথ বলে কথা! তাতে শেষ হাসি হেসেছেন জুভেন্টাসের পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড রোনালদো। বার্সেলোনার আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড মেসিকে মাঠ ছাড়তে হয়েছে একরাশ হতাশা নিয়ে। ম্যাচশেষে অবশ্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার নয়, দুজনের মধ্যকার বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের উপরই জোর দিয়েছেন রোনালদো।

মঙ্গলবার রাতে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ‘জি’ গ্রুপের ম্যাচে বার্সেলোনার মাঠ ন্যু ক্যাম্পে ৩-০ গোলে জিতেছে জুভেন্টাস। রোনালদোর জোড়া গোলের মাঝে ইতালিয়ান সিরি আর শিরোপাধারীদের পক্ষে লক্ষ্যভেদ ওয়েস্টন ম্যাককেনি। দুদলের আগের দেখায় জুভেন্টাসের মাঠ আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় ২-০ ব্যবধানে জিতেছিল বার্সেলোনা।

ম্যাচের ১৩ ও ৫২তম মিনিটে দুটি পেনাল্টি থেকে জালের ঠিকানা খুঁজে নেন রোনালদো। তার নৈপুণ্যে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ সেরা হয়েছে জুভেন্টাস। সমান পয়েন্ট নিয়ে শেষ ষোলোতে তাদের সঙ্গী হয়েছে বার্সেলোনা। তবে মেসিও ছিলেন না নিস্প্রভ। গোটা ম্যাচে সফরকারী জুভেন্টাসের গোলমুখে সর্বোচ্চ ১১টি শট নেন তিনি। যার মধ্যে সাতটি ছিল লক্ষ্যে। কিন্তু বারবার চেষ্টা করেও নিশানা ভেদ করতে ব্যর্থ হন তিনি।

আড়াই বছর পর মুখোমুখি লড়াইয়ে রোনালদো জিতেছেন, মেসি হেরেছেন। তবে ম্যাচের পর স্প্যানিশ গণমাধ্যম মোভিস্টারকে জুভেন্টাস তারকা বলেছেন, মেসিকে কখনোই প্রতিদ্বন্দ্বী ভাবেননি তিনি, ‘মেসির সঙ্গে আমার সম্পর্কটা বরাবরই সৌহার্দ্যপূর্ণ। তার সঙ্গে ১২, ১৩ কিংবা ১৪ বছর ধরে আমি বিভিন্ন অনুষ্ঠানে পুরস্কার ভাগাভাগি করেছি। আমি কখনোই তাকে প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে দেখিনি। সে সবসময়ই দলের জন্য সেরাটা করতে চায়। আমিও একই কাজ করি। তার সঙ্গে আমার সম্পর্ক খুবই ভালো।’

তাহলে সময়ের সেরা ফুটবলার বেছে নেওয়া নিয়ে কেন এত প্রতিদ্বন্দ্বিতা? পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী তারকা দিয়েছেন ব্যাখ্যা, ‘কিন্তু আমরা জানি যে, গণমাধ্যমের স্বার্থে, রোমাঞ্চের স্বার্থে ফুটবলে একটি প্রতিদ্বন্দ্বিতার প্রয়োজন পড়ে। কিন্তু তার ও আমার মধ্যে বোঝাপড়াটা খুবই ভালো। আমি সবসময় তাকে একইভাবে দেখে এসেছি।’

দুর্দান্ত জয়ের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে তীব্র উচ্ছ্বাসও প্রকাশ করেছেন রোনালদো, ‘স্পেন ও কাতালুয়ানিয়ায় ফেরাটা সবসময়ই দারুণ ব্যাপার। আমার মুখোমুখি হওয়া দলগুলোর মধ্যে অন্যতম শক্তিশালী একটির বিপক্ষে ন্যু ক্যাম্পে খেলা সবসময়ই কঠিন। আজ (মঙ্গলবার) আমরা চ্যাম্পিয়ন দল ছিলাম। একটি সত্যিকারের শক্তিশালী ও একতাবদ্ধ পরিবার! এভাবে খেললে মৌসুমের শেষ পর্যন্ত আমাদের ভয় পাওয়ার কিছু নেই।’

Comments