গাজীপুরের কাপাসিয়া-শ্রীপুর সড়কে ধস, যান চলাচল বন্ধ

গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার দস্যু নারায়ণপুর এলাকায় কাপাসিয়া-শ্রীপুর সড়কসহ কমপক্ষে আড়াই হাজার বর্গফুট ভূমি বানার নদীতে ২০ ফুট দেবে গেছে। গতরাত আনুমানিক ২টার দিকে এ ঘটনার পর থেকে ওই সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে।
Gazipur.jpg
কাপাসিয়া-শ্রীপুর সড়কসহ কমপক্ষে আড়াই হাজার বর্গফুট ভূমি বানার নদীতে ২০ ফুট দেবে গেছে। ছবি: স্টার

গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার দস্যু নারায়ণপুর এলাকায় কাপাসিয়া-শ্রীপুর সড়কসহ কমপক্ষে আড়াই হাজার বর্গফুট ভূমি বানার নদীতে ২০ ফুট দেবে গেছে। গতরাত আনুমানিক ২টার দিকে এ ঘটনার পর থেকে ওই সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে।

কাপাসিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ইসমত আরা জানান, এ নিয়ে ওই একই এলাকায় চার বার ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয় শিক্ষক রতন দাস জানান, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত আনুমানিক ২টায় বিকট শব্দ হয়। এসময় ঘরের ভিত কেঁপে উঠে। পরে বাইরে বেরিয়ে দেখি বসত ঘরের কাছ থেকে কাপাসিয়া-শ্রীপুর সড়কসহ বিস্তৃত এলাকা কমপক্ষে ২০ ফুট দেবে গেছে। প্রতিবেশীরাও ঘুম থেকে উঠে ঘটনা প্রত্যক্ষ করেন। ভূমিধসের ঘটনায় আশপাশের সন্তোষ মাস্টার, ননী গোপাল, সাধন মাস্টার, সুশীল চন্দ্র, নিতাই চন্দ্রসহ কমপক্ষে ১২টি পরিবারের বসতবাড়ি ভূমিধসের ঝুঁকিতে রয়েছে।

স্থানীয় গৃহবধূ লিপি দাস জানান, ভূমিধসে তাদের ১৫ শতক জমির মৌসুমি সবজির ফসল নষ্ট হয়ে গেছে। তার মতো অনেকেরই কলা বাগান ও অন্যান্য ফসলের ক্ষতি হয়েছে।

এ বিষয়ে গাজীপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী সাইফ উদ্দিন জানান, গত বছর ওই সড়কের সংস্কার কাজ শেষ হয়। সংস্কারের পর ৬ মাস পর্যবেক্ষণও করা হয়েছে। এতে কোনো প্রকার ঝুঁকির আশঙ্কা পরিলক্ষিত হয়নি। কিন্তু কেন এমনটি হলো, তা বোঝা যাচ্ছে না। এর আগেও ১৯৬৪, ২০০৩ ও ২০১৮ সালে একই জায়গায় অনুরূপ ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থলের সচিত্র বর্ণনা বিশেষজ্ঞদের কাছে পাঠানো হয়েছে। তাদের মতামতের ভিত্তিতে প্রকৃত অবস্থা জানা যাবে।

Comments

The Daily Star  | English
bailey road fire

Bailey Road fire: 39 of 45 victims identified, 33 bodies handed over to families

The bodies of 39 people, out of 45 who were killed in last night’s Bailey Road fire have been identified

2h ago