যুক্তরাষ্ট্রে প্রথম ভ্যাকসিন পেলেন আইসিইউ নার্স

যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রসাশনের (এফডিএ)অনুমোদনের পর দেশটিতে প্রথম ভ্যাকসিন নিয়েছেন আইসিইউ নার্স সান্ড্রা লিন্ডসে।
Sandra Lindsay
যুক্তরাষ্ট্রে প্রথম করোনা ভ্যাকসিন নিচ্ছেন নিউইয়র্কের কুইন্সে লং আইল্যান্ড জুইশ মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রের (আইসিইউ) নার্স সান্ড্রা লিন্ডসে। ১৪ ডিসেম্বর ২০২০। ছবি রয়টার্স

যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রসাশনের (এফডিএ)অনুমোদনের পর দেশটিতে প্রথম ভ্যাকসিন নিয়েছেন আইসিইউ নার্স সান্ড্রা লিন্ডসে।

আজ মঙ্গলবার মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানিয়েছে, সোমবার স্থানীয় সময় সকাল ৯টা ২০ মিনিটে সরাসরি প্রচারিত এক ভিডিও ইভেন্টে ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ নিয়েছেন নার্স সান্ড্রা।

তিনি নিউ ইয়র্কের কুইন্সে লং আইল্যান্ড জুইশ মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) কাজ করছেন।

নর্থওয়েল হেলথের কর্মচারী স্বাস্থ্যসেবার কর্পোরেট ডিরেক্টর ডা. মিশেল চেস্টার তার শরীরে ভ্যাকসিনের শট প্রয়োগ করেন।

ভ্যাকসিন নেওয়ার পর নার্স লিন্ডসে গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘এই ভ্যাকসিন নেওয়াটা অন্য কোনো ভ্যাকসিন নেওয়ার থেকে আলাদা কিছু মনে হয়নি।’

অন্যদেরও ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য অনুপ্রাণিত করতে চান লিন্ডসে।

ভ্যাকসিনটি নিরাপদ দাবি করে সিএনএন’কে তিনি বলেছেন, ‘আমি বিজ্ঞানের ওপর আস্থা রাখি। আমার পেশা গভীরভাবে বিজ্ঞানের সঙ্গে জড়িত। আমি এই মহামারি শেষ করার যুদ্ধের অংশ হতে চাই। আমি মানুষকে এমন কিছু করতে বলি না, যা আমি নিজেই করবো না।’

ভ্যাকসিন নেওয়ার কয়েক মিনিট পরই গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়ে। নিউইয়র্কের গভর্নর অ্যান্ড্রু কুয়োমো টুইটারে ভ্যাকসিন দেওয়ার ছবি প্রকাশ করেছেন।

এছাড়াও প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প টুইটে বলেছেন, ‘প্রথম ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। অভিনন্দন যুক্তরাষ্ট্র! অভিনন্দন বিশ্ব।’

ফাইজার ও বায়োএনটেকের তৈরি করোনা ভ্যাকসিন অনুমোদনের পর যুক্তরাষ্ট্রে গতকাল থেকে ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু হয়েছে।

বিশ্বে করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র। জনস হপকিনস বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় আক্রান্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ৬৫ লাখ ১৬ হাজারের বেশি। দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন ৩ লাখ ৪৭৭ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Inadequate Fire Safety Measures: 3 out of 4 city markets risky

Three in four markets and shopping arcades in Dhaka city lack proper fire safety measures, according to a Fire Service and Civil Defence inspection report.

4h ago