পি কে হালদারসহ পলাতক আসামির বক্তব্য প্রচারে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

ফেসবুক, ইউটিউবসহ ইলেকট্রনিক, প্রিন্ট ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পি কে হালদারসহ বিচারাধীন মামলার অভিযুক্ত সব পলাতক আসামি ও দণ্ডিতদের বক্তব্য প্রচার, সাক্ষাৎকার ও কথোপকথন প্রকাশে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন হাইকোর্ট।
দেশটাকে তো জাহান্নাম বানিয়ে ফেলেছেন
স্টার ফাইল ফটো

ফেসবুক, ইউটিউবসহ ইলেকট্রনিক, প্রিন্ট ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পি কে হালদারসহ বিচারাধীন মামলার অভিযুক্ত সব পলাতক আসামি ও দণ্ডিতদের বক্তব্য প্রচার, সাক্ষাৎকার ও কথোপকথন প্রকাশে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন হাইকোর্ট।

এ ছাড়া গত ২৮ ডিসেম্বর বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল একাত্তর টিভিতে প্রচারিত পি কে হালদারের ভিডিও ক্লিপ আগামী ১০ জানুয়ারির মধ্যে হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার কার্যালয়ে জমা দিতে চ্যানেলটির কর্তৃপক্ষকে আদেশ দেন আদালত।

আজ বুধবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি আহমেদ সোহেলের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ বিষয়ে একটি রিট আবেদনের শুনানি শেষে এ আদেশ দেন।

পি কে হালদারের সাক্ষাত্কার প্রচার ও তাকে সরাসরি টকশোতে অতিথি হিসাবে সংযুক্ত করায়, একাত্তর টিভির সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ এনে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আইনজীবী খুরশীদ আলম খান রিট আবেদনটি করেন।

২৮ ডিসেম্বর একাত্তর টিভি পি কে হালদারের একটি সাক্ষাত্কার প্রচার করে এবং তাকে ওই দিন রাত সাড়ে এগারটায় একটি লাইভ টকশো প্রোগ্রামের সঙ্গে সংযুক্ত করে। সেখানে পি কে হালদার তার বিরুদ্ধে বিদেশে বিপুল পরিমাণ অর্থ পাচারের অভিযোগ অস্বীকার করেন।

আজ আদেশ জারির সময় হাইকোর্ট বেঞ্চ বলেন, দেশের সংবিধান মত প্রকাশের স্বাধীনতার নিশ্চয়তা দিলেও, তা কিছুটা যুক্তিসঙ্গত বিধিনিষেধের মধ্যে থাকতে হবে।

এ বিষয়ে পরবর্তী শুনানির তারিখ আগামী ১০ জানুয়ারি নির্ধারণ করেন আদালত।

Comments

The Daily Star  | English

Developed countries failed to fulfill commitments on climate change: PM

Prime Minister Sheikh Hasina today expressed frustration that the developed countries are not fulfilling their commitments on climate change issues

1h ago