বিভাগীয় সমাবেশে যেতে বাধার অভিযোগ

সরকার না চাইলে আপনারা সমাবেশ করলেন কীভাবে?

অতীতের ব্যর্থতা, সামনে আন্দোলন ও নির্বাচনে ভরাডুবি আঁচ করতে পেরে বিএনপি মিথ্যাচারের ভাঙা রেকর্ড বাজিয়ে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, বিএনপি নেতারা অভিযোগ করছেন সরকার নাকি তাদের মাঠেই নামতে দিচ্ছে না। আবার এই অভিযোগ করছেন বরিশাল বিভাগীয় সমাবেশের মঞ্চ থেকে। সরকার যদি না চাইতো তাহলে আপনারা সমাবেশ করলেন কীভাবে?
ছবি: ফাইল ফটো

অতীতের ব্যর্থতা, সামনে আন্দোলন ও নির্বাচনে ভরাডুবি আঁচ করতে পেরে বিএনপি মিথ্যাচারের ভাঙা রেকর্ড বাজিয়ে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, বিএনপি নেতারা অভিযোগ করছেন সরকার নাকি তাদের মাঠেই নামতে দিচ্ছে না। আবার এই অভিযোগ করছেন বরিশাল বিভাগীয় সমাবেশের মঞ্চ থেকে। সরকার যদি না চাইতো তাহলে আপনারা সমাবেশ করলেন কীভাবে?

ওবায়দুল কাদের বলেন, তারা সারা দেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করল। ঢাকা শহরে প্রতিনিয়ত মিটিং মিছিল করছে আর চিরাচরিত মিথ্যাচারের তুবড়ি বাজাচ্ছে। তাদের মাঠে নামতে দিচ্ছে না এ কথা বলে বেড়াচ্ছে। আসলে অতীতের ব্যর্থতা, সামনে আন্দোলন ও নির্বাচনে ভরাডুবি আঁচ করতে পেরে মিথ্যাচারের ভাঙা রেকর্ড বাজিয়ে যাচ্ছে। তাদের আন্দোলন সুদূর পরাহত। তাদের আন্দোলন দূর আকাশের নীলিমা— যা দেখা যায় কিন্তু ছোঁয়া যায় না।

আজ শুক্রবার সকালে তার সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বিএনপি নেতারা এক দফা আন্দোলনের জন্য কর্মীদের প্রস্তুতি নিতে বলেছেন। এক দফা বলুন আর ১১ দফা বলুন, বিএনপি’র আন্দোলনের মরা গাঙে আর জোয়ার আসবে না। তথাকথিত এক দফা আন্দোলনও জনবিচ্ছিন্নতায় মুখ থুবড়ে পড়বে। যে কোনো আন্দোলনে বড় শক্তি জনগণ, জনগণই বিএনপি থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে তাদের অপরাজনীতির জন্য।

বিএনপি আন্দোলনের ইস্যু সংকটে পড়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার প্রতি দেশের জনগণের আস্থা শতভাগ। সাম্প্রতিক পৌরসভা নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের বিপুল বিজয় তারই নজির। যে কোনো জনঘনিষ্ট ইস্যুতে শেখ হাসিনা সবার আগে রেসপন্স করেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ দেশের মানুষের সাথে সব সময় থাকে। শেখ হাসিনার জনমুখী রাজনীতির কারণে বিএনপি আন্দোলনের ইস্যু সংকটে পড়েছে। একবার এই ইস্যু আবার ওই ইস্যু, বিএনপি ইস্যু নির্বাচন করতে কাটিয়ে দিয়েছে এক যুগ।

শেখ হাসিনার সরকার নাকি দেউলিয়াত্বের শেষ পর্যায়ে। শেখ হাসিনার সরকার নয়, বিএনপি’র রাজনীতি এখন গভীর সমুদ্রে কম্পাসহীন নাবিকের মতো। মিথ্যাচার তাদের রাজনীতি গ্রাস করেছে। নেতাদের ওপর কর্মীদের চরম আস্থাহীনতা, দলের গঠনতন্ত্র থেকে দুর্নীতিবাজদের অযোগ্যতার ধারা বাতিল করে বিএনপি আজ আত্মস্বীকৃত দুর্নীতিবাজ দলে প্রতিষ্ঠিত করেছে নিজেদের। ক্ষমতার জন্য বিদেশি দূতাবাসের সহযোগিতা চেয়ে যেদিন বিবৃতি দেয়, সেদিনই তাদের দেউলিয়াত্ব স্পষ্ট হয়ে উঠে। তারা জনগণের রাজনীতি করে না। রাজনীতি করে ক্ষমতার জন্য। তাদের টার্গেট দুর্নীতি আর নির্ভরতা বিদেশি প্রভুদের উপর— বলেন ওবায়দুল কাদের।

আরও পড়ুন

বিএনপি নেতাদের আসার খবরে ফেরি বন্ধের অভিযোগ, ভোগান্তিতে যাত্রীরা

Comments

The Daily Star  | English
Sudden trial of metro rail causes sufferings to commuters

Sudden trial of metro rail causes sufferings to commuters

An unannounced trial of metro rail during the busy morning hours today caused immense sufferings to the commuters

1h ago