দশমিনায় শহীদ মিনারে বিএনপির শ্লোগান দেওয়া নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ১৯, গ্রেপ্তার ১

পটুয়াখালীর দশমিনায় শহীদ মিনারে ফুল দেয়ার সময় বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে চার পুলিশ সদস্যসহ ১৯ জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় দশমিনার উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ফখরুজ্জামান বাদলকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
পটুয়াখালী
স্টার ডিজিটাল গ্রাফিক্স

পটুয়াখালীর দশমিনায় শহীদ মিনারে ফুল দেয়ার সময় বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে চার পুলিশ সদস্যসহ ১৯ জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় দশমিনার উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ফখরুজ্জামান বাদলকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

গত রাত ১২ টার দিকে দশমিনা মডেল সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে এ ঘটনা ঘটে।

আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন, এসআই তৌসিফ ইসলাম, আব্দুর রহিম, কনস্টেবল মো. সুমন ও মো. জসিম। তারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

পুলিশের দাবি, রাত দেড়টায় নাশকতার চেষ্টাকালে ককটেলসহ হাতেনাতে গ্রেপ্তার করা হয়েছে ফখরুজ্জামান বাদলকে। অন্যদিকে বিএনপি নেতাকর্মীরা বলছেন, ফুল দেওয়ার সময় বিএনপির শ্লোগান দেওয়া নিয়ে পুলিশ তাদের বাধা দেয়।  

দশমিনা উপজেলা বিএনপির সভাপতি আলিম তালুকদার বলেন
, দশমিনা উপজেলা বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা দলীয় শ্লোগান দিয়ে শহীদ মিনারে ফুল দিতে গতকাল রাত ১২টায় দশমিনা মডেল সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাঠে যায়। শহীদ মিনারের কাছাকাছি পৌঁছালে থানা পুলিশ তাদের দলীয় শ্লোগান দিতে নিষেধ করেন। এ সময় বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশের সাথে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। পুলিশ লাঠিচার্জ করলে বিএনপি নেতাকর্মীরা মাঠ ছেড়ে চলে যায়।

দশমিনা উপজেলা বিএনপির সভাপতি আলীম তালুকদার জানান, পুলিশের লাঠিপেটায় উপজেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মো. ফখরুজ্জামান বাদল এবং সিকদার এজাজুরুল ইসলামসহ ১৫ জন আহত হয়েছেন। আহত বিএনপি নেতা বাদল ও এজাজকে রাত সোয়া ১২ টার দিকে দশমিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয় ও অন্যরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

দশমিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. জসীম উদ্দিন জানান, শহীদ মিনারে ফুল না দিয়ে মাঠ ছেড়ে বিএনপির নেতাকর্মীরা রাত দেড়টায় উপজেলার নলখোলা বন্দরে চেয়ারম্যান ট্রাভেলসের সামনে নাশকতার চেষ্টা চালায়। এ সময় একটি ককটেল বিষ্ফোরণ ঘটালে পুলিশ ধাওয়া করে বিএনপি নেতা ফখরুজ্জামান বাদলকে আটক করে। বাদলের সাথে ১টি ও রাস্তায় পরিত্যক্ত আরও ১টি তাজা ককটেল উদ্ধার করে পুলিশ। ককটেল বিষ্ফোরণ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের আঘাতে এ সময় ৪ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে।

এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

Comments

The Daily Star  | English

Hiring begins with bribery

UN independent experts say Bangladeshi workers pay up to 8 times for migration alone due to corruption of Malaysia ministries, Bangladesh mission and syndicates

1h ago