নাইজেরিয়ার আবাসিক স্কুল থেকে অপহৃত ২৭৯ মেয়ে মুক্ত

উত্তর-পশ্চিম নাইজেরিয়ার আবাসিক স্কুল থেকে অপহৃত প্রায় ৩০০ মেয়ে মুক্তি পেয়েছে।
NIGERIA.jpg
মিনিবাসে করে শিক্ষার্থীদের একটি সরকারি ভবনে নিয়ে যাওয়া হয়। ছবি: রয়টার্স

উত্তর-পশ্চিম নাইজেরিয়ার আবাসিক স্কুল থেকে অপহৃত প্রায় ৩০০ মেয়ে মুক্তি পেয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার বিবিসি জানায়, জামফারা রাজ্যের জাঙ্গেবি শহরের আবাসিক স্কুল থেকে অপহৃত ২৭৯ জনকে মুক্তি দিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

গত সপ্তাহে ৩১৭ জন শিক্ষার্থীকে অপহরণ করা হয়েছে এমন তথ্য জানানো হলেও সংখ্যাটি ভুল ছিল বলে জানিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন।

এক কর্মকর্তা রয়টার্সকে বলেন, অপহরণের পর বেশ কয়েকজন স্কুলছাত্রী পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছিল। সে কারণেই এই সংখ্যায় কিছুটা গরমিল হয়েছে।

দেশটিতে গত কয়েক সপ্তাহের মধ্যে এটাই সবচেয়ে বড় গণ-অপহরণের ঘটনা। সশস্ত্র গ্রুপগুলো প্রায়ই সেখানে চাঁদা আদায়ের জন্য স্কুল শিক্ষার্থীদের অপহরণ করে থাকে।

গত শুক্রবার অজ্ঞাত বন্দুকধারীরা রাতের বেলা আবাসিক স্কুলের ভেতর প্রবেশ করে। পরে তারা মেয়েদের কাছের একটি জঙ্গলে নিয়ে যায় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

মঙ্গলবার জামফারা রাজ্যের গভর্নর জানিয়েছেন, স্কুলছাত্রীদের ওই দলটিকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে এবং তারা এখন নিরাপদে আছে। মিনিবাসে করে ওই শিক্ষার্থীদের একটি সরকারি ভবনে নিয়ে যাওয়া হয়। ভবনের বাইরে শত শত মেয়েকে জড়ো হতে দেখা গেছে।

বিবিসিকে এক স্কুলছাত্রী জানান, তাদের মধ্যে কয়েকজনকে আঘাত করা হয়েছে। অনেকেই হাঁটতে পারছে না।

১৫ বছর বয়সী আরেক শিক্ষার্থী বলেন, ‘তারা (অপহরণকারী) বলেছে, না হাঁটলে গুলি করা হবে। আমাদের একটি নদীর ওপারে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। সেখানে তারা আমাদের লুকিয়ে রাখে। আমাদের একটি জঙ্গলে গাছের নিচে ঘুমাতে দেয়। আমাদের তারা বন্দুক দিয়ে পিটিয়েছে।’

রাজ্যের গভর্নর বেলো টুইটে জানান, অপহৃত ছাত্রীদের মুক্তি পাওয়ার বিষয়টির ঘোষণা দিতে পেরে তিনি আনন্দিত।

আরও পড়ুন:

নাইজেরিয়ার আবাসিক স্কুল থেকে ৩ শতাধিক মেয়েকে অপহরণ

Comments