করোনাভাইরাস

ভারতে ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত ৩৯৭২৬, মহারাষ্ট্রে সর্বোচ্চ ২৫৮৩৩

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৩৯ হাজার ৭২৬ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। চলতি বছরে এটিই এক দিনে সবচেয়ে বেশি শনাক্ত। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে এক কোটি ১৫ লাখ ১৪ হাজার ৩৩১ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে তৃতীয়তে।
মুম্বাইর একটি বস্তি এলাকায় করোনা পরীক্ষার জন্যে নমুনা সংগ্রহ করা হচ্ছে। ১৮ মার্চ ২০২১। ছবি: রয়টার্স

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৩৯ হাজার ৭২৬ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। চলতি বছরে এটিই এক দিনে সবচেয়ে বেশি শনাক্ত। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে এক কোটি ১৫ লাখ ১৪ হাজার ৩৩১ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে তৃতীয়তে।

একই সময়ে মারা গেছেন আরও ১৫৪ জন। করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছেন এক লাখ ৫৯ হাজার ৩৭০ জন। আর গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ২০ হাজার ৬৫৪ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন এক কোটি ১০ লাখ ৮৩ হাজার ৬৭৯ জন। ভারতে মোট শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৬ দশমিক ২৬ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি ২৫ হাজার ৮৩৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে মহারাষ্ট্রে। এটিই এখন পর্যন্ত এক দিনে মহারাষ্ট্রে সর্বোচ্চ শনাক্ত।

আজ শুক্রবার ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এ নিয়ে টানা দুই দিন ধরে দেশটিতে দৈনিক ৩০ হাজারেরও বেশি মানুষের করোনা শনাক্ত হচ্ছে। আর প্রায় ১০ দিন ধরে দৈনিক ২০ হাজারেরও বেশি রোগী শনাক্ত হচ্ছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত এক কোটি ১৫ লাখ ১৪ হাজার ৩৩১ জনের মধ্যে বর্তমানে আক্রান্ত রয়েছেন দুই লাখ ৭১ হাজার ২৮২ জন।

দেশটিতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হতে পারে বলে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা। বুধবার রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় তাদেরকে দ্রুত ও যথাযথ উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিকেল রিসার্চের তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে ১০ লাখ ৫৭ হাজার ৩৮৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। আর এখন পর্যন্ত পরীক্ষা করা হয়েছে ২৩ কোটি ১৩ লাখ ৭০ হাজার ৫৪৬টি নমুনা।

উল্লেখ্য, গত বছরের ৩০ জানুয়ারি ভারতে প্রথম করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টারের তথ্য অনুযায়ী, সংক্রমণের দিক থেকে বর্তমানে বিশ্বে ভারতের অবস্থান তিন নম্বরে। ভারতের আগে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রাজিল।

জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১২ কোটি ১৭ লাখ ৪৬ হাজার ১৭৬ জন এবং মারা গেছেন ২৬ লাখ ৯০ হাজার ৮৩৪ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ছয় কোটি ৮৯ লাখ ৬৫ হাজার ১৩৬ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Sundarbans: Bangladesh's shield against cyclones

The coastline of Bangladesh has been hammered by cyclones over and over since time immemorial

39m ago