খেলা

হতাশ মাহমুদউল্লাহ ভুলতে চান নিউজিল্যান্ড সফরের কথা

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পথ চলা বরাবরই দুঃস্বপ্নের মতো। ব্যর্থতার বৃত্তকে লম্বা করে আরও একটি সিরিজে হোয়াইট ওয়াশ হয়েছে বাংলাদেশ। শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে এদিন তো পাত্তাই পাননি টাইগাররা। অথচ সিরিজের শুরুতে বেশ আত্মবিশ্বাসী ছিলেন তারা। উল্টো জুটেছে বিব্রতকর হার। তাতে স্বাভাবিকভাবেই হতাশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। দ্রুতই এ সব স্মৃতি ভুলে যেতে চান তিনি।
Mahmudullah

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পথ চলা বরাবরই দুঃস্বপ্নের মতো। ব্যর্থতার বৃত্তকে লম্বা করে আরও একটি সিরিজে হোয়াইট ওয়াশ হয়েছে বাংলাদেশ। শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে এদিন তো পাত্তাই পাননি টাইগাররা। অথচ সিরিজের শুরুতে বেশ আত্মবিশ্বাসী ছিলেন তারা। উল্টো জুটেছে বিব্রতকর হার। তাতে স্বাভাবিকভাবেই হতাশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। দ্রুতই এ সব স্মৃতি ভুলে যেতে চান তিনি।

এবারের সফরে বেশ আগেভাগেই গিয়েছিল বাংলাদেশ। কোয়ারেন্টিন পর্বের পর বেশ জোরালো প্রস্তুতি নিয়েছেন তারা। কিন্তু ওয়ানডেতে যেমন তেমন টি-টোয়েন্টিতে তো স্রেফ গেলেন তিন ম্যাচেই। অথচ কিউইদের সেরা তারকাদের অনেকেই নেই এ সিরিজে। এমন দলের কাছে এভাবে উড়ে যাওয়া মানতে পারছেন না মাহমুদউল্লাহ।

সংবাদ সম্মেলনে তাই হতাশাই ঝরে অধিনায়কের কণ্ঠে, 'আপনি যখন ৭৬ রানে অল আউট হবেন, তখন সেখান থেকে ইতিবাচক কিছু নেওয়ার থাকে না। আমার মনে হয় আমরা সিরিজজুড়ে আমাদের সেরা ক্রিকেট খেলিনি। আমরা এখানে আগে এসেছি, নিজেদের প্রস্তুত করেছি, কুইন্সটাউনে ভালো একটি ক্যাম্প করেছি, ছেলেরা কঠোর পরিশ্রম করছিল, জিমে কাজ করছিল, কিন্তু আমরা মাঠে সেটি দেখাতে পারিনি। অধিনায়ক হিসেবে এটা হতাশাজনক।'

আর দ্রুতই এ সিরিজের কথা ভুলতে চান টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক, 'তারপরও আমাদের এই সিরিজ থেকে কিছু বের করতে হবে যা নিয়ে আমরা পরের সিরিজের জন্য কাজ করতে পারব। এবং অবশ্যই আমরা এই সিরিজটি ভুলতে চাইবো। কারণ আমরা এখানে এসেছিলাম কিছু অর্জন করতে কারণ আমরা এখানে আগে কখনও কিছু করতে পারিনি। কিন্তু আমরা মুখিয়ে ছিলাম এই সফরে প্রতিযোগিতার জন্য কিন্তু আমরা কিছু করতে পারিনি।'

ঊরুর চোটের জন্য তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে এদিন খেলতে পারেননি মাহমুদউল্লাহ। তার জায়গায় দলকে নেতৃত্ব দেন লিটন দাস। সামনে হয়তো এমন দিন আরও দেখতে হতে পারে। নিজেদের অভিজ্ঞতা তরুণদের মাঝে ছড়িয়ে দেওয়ার কথা বলেন তিনি, 'আমাদের (সিনিয়র) অভিজ্ঞতা ছড়িয়ে দিতে হবে তাদের (জুনিয়র) মধ্যে কারণ আমরা এখানে বেশ কয়েকবার খেলেছি। কয়েকজন দুই-এক বার খেলেছে, কয়েকজন একদমই নতুন। এবং এখানের কন্ডিশন খুবই কঠিন। আমাদের সেই অভিজ্ঞতা ছড়িয়ে দিতে হবে এবং শিখে সেটাকে আগামী বার কাজে লাগাতে পারে।'

তবে দিনশেষে পারফরম্যান্সই মূল কথা বলে জানান অধিনায়ক, 'আমি অনেক কিছুই বলতে পারি কিন্তু দিনশেষে আপনাকে সেটি পারফরম্যান্সেই দেখাতে হবে। সেটাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। খুবই হতাশাজনক সিরিজ আমাদের জন্য কিন্তু আমাদের দ্রুত ঘুরে দাঁড়াতে হবে কারণ আমাদের যেকোনো ফরম্যাটে কিছু জয় খুবই প্রয়োজন আমাদের আত্মবিশ্বাস ফিরিয়ে আনতে। আমার মনে হয় আমরা আত্মবিশ্বাস হারাচ্ছি হারের কারণে। যা পুরো দলকে প্রভাবিত করে। আমাদের উপায় খুঁজে বের করতে হবে জয় পেতে। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে আমাদের সামনে কিছু সুযোগ ছিল, আমার মনে হয় আমরা খুব কাছে ছিলাম, দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতেও প্রতিযোগিতায় ছিলাম। কিন্তু কিছু মুহূর্তের ব্যাপারে আমাদের সাবধান থাকতে হবে যেন পরের বার আমরা সেই সুযোগগুলো নিতে পারি।'

Comments

The Daily Star  | English
BSEC freezes BO accounts of Benazir, his family members

BSEC freezes BO accounts of Benazir, his family members

The Anti-Corruption Commission has recently requested the BSEC to freeze the BO accounts

1h ago