শীর্ষ খবর

বেনাপোল বন্দরের আমদানি-রপ্তানি বন্ধ থাকবে ২ দিন

বেনাপোল বন্দর দিয়ে আজ বুধবার সকাল থেকে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে দু’দিন বন্ধ থাকবে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য।
ফাইল ফটো

বেনাপোল বন্দর দিয়ে আজ বুধবার সকাল থেকে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে দু’দিন বন্ধ থাকবে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য।

বাংলা নববর্ষের কারণে আজ বাংলাদেশে সরকারি ছুটি এবং আগামীকাল ভারতে নববর্ষের সরকারি ছুটির কারণে এ দু’দিন দুই দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ থাকবে। তবে, দু’দেশের পাসপোর্টধারী যাত্রীদের যাতায়াত অব্যাহত থাকবে।

বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আহসান হাবিব দ্য ডেইলি স্টারকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, সরকারি ছুটিতে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম বন্ধ থাকলেও দু’দেশের মধ্যে পাসপোর্টধারী যাত্রীদের চলাচল স্বাভাবিক থাকবে।

বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্টস এসোসিয়েশনের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন জানান, ১৪ এপ্রিল এপার বাংলায় পহেলা বৈশাখ এবং ১৫ এপ্রিল ওপার বাংলায় পহেলা বৈশাখের সরকারি ছুটির কারণে দু’দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম বন্ধ থাকছে। ১৬ এপ্রিল শনিবার সকাল থেকে পুনরায় বাণিজ্যিক কার্যক্রম চালু হবে।

ভারতের পেট্রাপোল বন্দরের সিঅ্যান্ডএফ স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক কার্তিক চন্দ্র জানান, প্রতি বছর পহেলা বৈশাখে ভারতের ব্যবসায়ীরা বর্ষবরণ পালন করেন। এদিন ছুটি কাটাতে বন্দরে পণ্য পরিবহন বন্ধ থাকে। বিষয়টি বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের চিঠির মাধ্যমে আগেই জানানো হয়েছে।

বেনাপোল বন্দরের পরিচালক আব্দুল জলিল জানান, বেনাপোল বন্দরের কার্যক্রম সপ্তাহের সাত দিনই ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকে। তবে বাংলা নববর্ষ উপলক্ষে সরকারি ছুটি থাকায় আজ বাংলাদেশে এবং আগামীকাল ভারতে আমদানি ও রপ্তানি বন্ধ থাকবে। তবে, আমদানি-রপ্তানি বন্ধ থাকলেও বৃহস্পতিবার বেনাপোল বন্দরের মালামাল ডেলিভারি প্রক্রিয়া স্বাভাবিক থাকবে।

টানা দু’দিন আমদানি-রপ্তানি বন্ধ থাকায় বন্দরে পণ্যজটের আশঙ্কা করছেন ব্যবসায়ীরা। প্রতিদিন এ বন্দর দিয়ে ভারত থেকে চারশ ট্রাক পণ্য আমদানি হয়। বেনাপোল বন্দর থেকেও ১৫০ ট্রাক বাংলাদেশি পণ্য ভারতে রপ্তানি হয়। প্রতিদিন আমদানি পণ্য থেকে সরকারের প্রায় ২০ কোটি টাকা রাজস্ব আয় হয়ে এই বন্দর থাকে।

Comments

The Daily Star  | English

Extreme heat sears the nation

The scorching heat continues to disrupt lives across the country, forcing the authorities to close down all schools and colleges till April 27.

9h ago