ভাগ্যের কিছুটা সহায়তা দরকার লিটনের: ডমিঙ্গো

বাংলাদেশে আসা উইন্ডিজের বিপক্ষে জানুয়ারিতে তিন ওয়ানডেতে লিটনের সংগ্রহ ছিল যথাক্রমে ১৪, ২২ ও ০। এরপর নিউজিল্যান্ড সফরে মার্চে ওয়ানডে সিরিজে তিনি খেলেছিলেন যথাক্রমে ১৯, ০ ও ২১ রানের ইনিংস।
liton das
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

ঘরের মাঠে গত বছর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে তাক লাগিয়ে দিয়েছিলেন লিটন দাস। তিন ম্যাচে দুই সেঞ্চুরিতে করেছিলেন ৩১১ রান। গড়েছিলেন এই সংস্করণে বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ ১৭৬ রানের ইনিংসের রেকর্ডও। কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সবশেষ দুটি ওয়ানডে সিরিজে সেই লিটনই খাবি খেয়েছেন। হাসেনি তার ব্যাট। এমন ছন্দপতন থেকে উদ্ধার পেতে লিটনের ভাগ্যের ছোঁয়া দরকার বলে জানিয়েছেন প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো।

বাংলাদেশে আসা উইন্ডিজের বিপক্ষে জানুয়ারিতে তিন ওয়ানডেতে লিটনের সংগ্রহ ছিল যথাক্রমে ১৪, ২২ ও ০। এরপর নিউজিল্যান্ড সফরে মার্চে ওয়ানডে সিরিজে তিনি খেলেছিলেন যথাক্রমে ১৯, ০ ও ২১ রানের ইনিংস। কিউদের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতেও চূড়ান্ত মাত্রায় হতাশ করেছিলেন লিটন। তিন ম্যাচে তার রান ছিল সবমিলিয়ে মাত্র ১০।

তবে টেস্টে রানের মধ্যেই আছেন লিটন দাস। ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে দুই টেস্টের সিরিজে তিনি ছিলেন বাংলাদেশের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। চার ইনিংসে দুই ফিফটিতে করেছিলেন ২০০ রান। এরপর লঙ্কানদের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টে ভালো না খেললেও প্রথম টেস্টের একমাত্র ইনিংসে পেয়েছিলেন হাফসেঞ্চুরি।

শনিবার ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে ডমিঙ্গো আশা প্রকাশ করে বলেছেন, অচিরেই লিটনের বড় ইনিংস খেলার সম্ভাবনা দেখছেন তিনি, ‘লিটনের ওপর আমার অনেক আস্থা রয়েছে। সে একজন যোগ্যতাসম্পন্ন খেলোয়াড়। আমার মনে হয়, তার কিছুটা ভাগ্যের সহায়তা দরকার। তার সামর্থ্য নিয়ে কোনো প্রশ্ন আছে বলে মনে হয় না। সব খেলোয়াড়েরই এমন সময় যায় যখন তারা পাঁচ-ছয় ম্যাচ ভালো খেলে না। আমি মনে করি, তখন চ্যালেঞ্জটা দাঁড়ায় পেছনে থেকে এই খেলোয়াড়দের সমর্থন দেওয়া। মন বলছে, খুব শিগগিরই সে একটা বড় একটা স্কোর করবে।’

আগামীকাল রবিবার শুরু হবে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ। পরের দুটি ম্যাচ হবে ২৫ ও ২৮ মে। দিবারাত্রির ম্যাচগুলো মাঠে গড়াবে বাংলাদেশ সময় দুপুর একটায়। সবগুলো খেলাই হবে মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। বিশ্বকাপ সুপার লিগের অংশ হওয়ায় সিরিজটি দি দলের জন্যই ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ।

Comments

The Daily Star  | English

Trial of murder case drags on

Even 11 years after the Rana Plaza collapse in Savar, the trial of two cases filed over the incident did not reach any verdict, causing frustration among the victims.

9h ago