পাউবো’র প্রকৌশলীকে মারধর: সংসদ সদস্য শিমুলের ভাগ্নে নাফিউল গ্রেপ্তার

পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হানকে মারধরের মামলায় নাটোর-২ আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুলের ভাগ্নে নাফিউল ইসলাম অন্তরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
নাফিউল ইসলাম অন্তর। ছবি: সংগৃহীত

পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হানকে মারধরের মামলায় নাটোর-২ আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুলের ভাগ্নে নাফিউল ইসলাম অন্তরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

আজ মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে নাটোর শহরের বড়গাছা এলাকার নিজ বাসা থেকে অন্তরকে গ্রেপ্তার করা হয়।

মামলা দায়েরের পর থেকে অন্তরকে গ্রেপ্তার করতে তার বাসাসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হয় বলে জানায় পুলিশ।

এর আগে, গতকাল নাটোর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হানকে মারধরের অভিযোগ ওঠে সেচ্ছাসেবকলীগ নেতা নাফিউল ইসলাম অন্তরের বিরুদ্ধে।

নাফিউলের বাবা মীর আমিরুল ইসলাম জাহান পানি উন্নয়ন বোর্ডের একজন ঠিকাদার এবং নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ।

পুলিশ জানায়, গতকাল সোমবার বিকালে ঠিকাদারি কাজের মান নিয়ে মীর আমিরুল ইসলাম জাহানের সঙ্গে কথা বলায় প্রকৌশলীর ওপর চড়াও হন আমিরুল ইসলামের ছেলে নাফিউল।

এসময় প্রকৌশলী আবু রায়হানকে কিল-ঘুষি মারতে থাকেন নাফিউল। এতে প্রকৌশলী আবু রায়হানের ঠোঁট কেটে যায় এবং শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত লাগে। পরে তাকে উদ্ধার করে নাটোর সদর হাসপাতালে নিয়ে যান পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।

গতকাল রাতে নাফিউলকে আসামি করে সরকারি কাজে বাধা এবং কর্মকর্তাকে মারধরের অভিযোগে নাটোর থানায় মামলা দায়ের করেন প্রকৌশলী আবু রায়হান।

নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হান বলেন, ‘পানি উন্নয়ন বোর্ডের ভবনের টাইলস লাগানোর কাজ করছেন ঠিকাদার আমিরুল ইসলাম জাহান। সেখানে শিডিউল মোতাবেক মানের টাইলস লাগাতে বললে ঠিকাদার তাতে অস্বীকৃতি জানায়। গতকাল এসব বিষয়ে অফিসে এসে কথা বলতে চায় ঠিকাদার। এসময় অকথ্য ভাষায় আমাকে গালিগালাজ করতে থাকেন ঠিকাদার আমিরুল ইসলাম।’

তিনি আরও বলেন, ‘গালিগালাজ না করে ভদ্রভাবে কথা বলতে বললে ঠিকাদারের ছেলে নাফিউল উত্তেজিত হয়ে আমাকে কিল-ঘুষি মারতে থাকেন। এতে আমার ঠোঁট কেটে যায় এবং হাত, মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাত লাগে।’

পাউবো’র নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হানের ওপর হামলার প্রতিবাদে ঢাকায় পানি ভবনের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ, মানববন্ধন এবং সাংবাদিক সম্মেলন করেন পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা। সেখানে আসামিকে গ্রেপ্তারের বিষয়ে আগামী রোববার পর্যন্ত সময় বেঁধে দেন আন্দোলনকারীরা। অন্যথায় বৃহত্তর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেন তারা।

নাটোরের পুলিশ সুপার (এসপি) লিটন কুমার সাহা বলেন, ‘মামলা দায়েরের পর থেকেই নাফিউলকে ধরতে সম্ভাব্য সব স্থানে অভিযান চালায় পুলিশ। পরে আজ বিকালে শহরের বড়গাছা এলাকার বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। আগামীকাল তাকে আদালতে তোলা হবে।’

Comments

The Daily Star  | English

How Lucky got so lucky!

Laila Kaniz Lucky is the upazila parishad chairman of Narsingdi’s Raipura and a retired teacher of a government college.

6h ago