‘সব ব্যাংক-শেয়ার বাজার এখন ঢাকা ও বঙ্গবন্ধু মেডিকেলের আইসিইউতে’

দেশে আর্থিক খাতে অনিয়মের অভিযোগ অভিযোগ তুলে বিএনপির সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদ সংসদে বলেছেন, দেশের ব্যাংকগুলো আজ বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি। বঙ্গবন্ধু চিকিৎসক পরিষদের ডাক্তাররা তাদের চিকিৎসা দিচ্ছে।
সংসদে বিএনপির এমপি হারুনুর রশীদ। ফাইল ছবি

দেশে আর্থিক খাতে অনিয়মের অভিযোগ অভিযোগ তুলে বিএনপির সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদ সংসদে বলেছেন, দেশের ব্যাংকগুলো আজ বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি। বঙ্গবন্ধু চিকিৎসক পরিষদের ডাক্তাররা তাদের চিকিৎসা দিচ্ছে।

শেয়ার বাজারে বিনিয়োগকারীদের দুর্দশার ব্যাপারে তিনি বলেন, শেয়ার বাজার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউতে ভর্তি আছে। সেখানে মাঝে মাঝে চোখ একটু খুলছে আবার চোখ বন্ধ করছে। চোখ খুলে যখন দেখে দরবেশ বাহিনী ঘিরে আছে তখন আবার চোখ বন্ধ হয়ে যাচ্ছে।

জাতীয় সংসদে প্রস্তাবিত ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটের উপর আলোচনায় অংশ নিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের এই এমপি আজ এসব কথা বলেন।

হারুন বলেন, ব্যাংকগুলো সাংঘাতিকভাবে লুটেরাদের দ্বারা আক্রান্ত। লক্ষ লক্ষ কোটি কোটি টাকা ঋণ দেওয়া হচ্ছে, ঋণগ্রহীতারা কেউ ঋণ পরিশোধ করছে না, ঋণ খেলাপিও হচ্ছে না। তারা দেদারে আনন্দ ফুর্তি করে ঘুরে বেড়াচ্ছে। এ কারণে ব্যাংকগুলো আজ আমাদের বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি।

তিনি বলেন, আর্থিক দিক দিয়ে বাংলাদেশ এখন নিঃসন্দেহে দুর্যোগ কবলিত দেশে পরিণত হয়েছে। সংবিধান এখন আর রাষ্ট্র পরিচালনার দলিল নয়, সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগণের সঙ্গে প্রতারণার দলিলে পরিণত হয়েছে।

তিনি বলেন, ‘সংবিধানের ক্ষমতাবলে মহাজোট সরকারের আমলে ৪০–৫০ জন খুনের আসামিকে রাষ্ট্রপতির ক্ষমা প্রদর্শন করা হয়েছে। আল জাজিরার প্রতিবেদনে সারা বিশ্বে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে।’

খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসায় সরকার বাধা দিচ্ছে অভিযোগ করে তিনি বলেন, ‘রাজনৈতিক কারণে বিএনপি চেয়ারপারসনকে সাজা দিয়ে চিকিৎসার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে না। আর বাংলাদেশে যারা দণ্ডিত জঘন্যতম আসামি তাদের মাফ করে দেওয়া হচ্ছে, এটা হতে পারে না।’

নির্বাচন কমিশনের সমালোচনা করে হারুন বলেন, ‘এই নির্বাচন কমিশনের থাকার দরকার কী? এটা বিলুপ্ত করে দেন। আমরা কি ৫০ বছরে আমাদের গণতন্ত্রের ভিত্তি গড়তে পেরেছি? দেশে কি গণতান্ত্রিক অবস্থা আছে? কোনো নির্বাচনী ব্যবস্থা আছে?’

পদ্মা সেতু, মেট্রো রেলের মতো সরকারের উন্নয়ন প্রকল্পের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রশংসাও করেন বিএনপির এই এমপি। তিনি বলেন, ‘সরকারের যেসব অর্জন সেসব অস্বীকার করার উপায় নেই। অবশ্যই প্রধানমন্ত্রী ইতিহাস সৃষ্টি করছেন। পদ্মা সেতু হচ্ছে, মেট্রো রেল হচ্ছে, আকাশে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট ঘুরছে, পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র হচ্ছে, টানেল হচ্ছে।’

হারুনের বক্তব্যের পর সরকারি দলের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ বলেন, বিএনপির এমপি সংবিধানকে প্রতারণা দলিল বলেছেন, এগুলো এক্সপাঞ্জ করতে হবে।

তিনি বলেন, সংবিধান বুটের তলায় পিষ্ট করে জঞ্জালের রাজনীতি শুরু করেছিলেন জিয়াউর রহমান। ব্যাংক লুটপাটের হোতা জিয়াউর রহমান। তার আমল থেকেই ব্যাংকে লুটপাট শুরু। এখনো দেখা যাবে ৯০ শতাংশ পরিচালক বিএনপি সমর্থক।

 

Comments

The Daily Star  | English
heavy rainfall alert in Bangladesh

Heavy rain set to drench Bangladesh for next 5 days

The country may experience continual rainfall across the country, including Dhaka, for the next five days commencing 9:00am today, said Bangladesh Meteorological Department

2h ago