খেলা

ট্রিপল সেঞ্চুরির পথে নাসির

দিনশেষে তার নামের পাশে ঝলমল করছে অপরাজিত ২৭০ রান।
ছবি: সংগ্রহ

বিপিএলে ব্যাটিং দিয়ে খুব একটা আলোয় আসতে পারেননি নাসির হোসেন। দীর্ঘ পরিসরের ক্রিকেটে ফিরে পেলেন ছন্দ, করলেন ম্যারাথন ব্যাটিং। আগের দিনই সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছিলেন। শুক্রবার ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরি করেও থামেননি, এগিয়ে যাচ্ছেন ত্রিশতকের দিকে। দিনশেষে তার নামের পাশে ঝলমল করছে অপরাজিত ২৭০ রান।

শুক্রবার চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে নাসির হোসেন আর আরিফুল হকের ব্যাটের দাপট দিনভর পুড়েছে বরিশালের বোলাররা। এই দুজনের ৩৮৫ রানের জুটিতে ৫ উইকে ৫৭০ রানের পাহাড়ে উঠে গেছে রংপুর বিভাগ। প্রথম ইনিংসে বরিশালের করা ৩৩৫ রানের থেকে এগিয়ে আছে ২৩৫ রানে।

৪ উইকেটে ২৬৪ রান নিয়ে দিন শুরু করেছিল রংপুর। ১০১ রান করা নাসিরের সঙ্গে ৩৪ রান নিয়ে ক্রিজে ছিলেন বিপিএলে মুন্সিয়ানা দেখানো আরিফুল হক। তৃতীয় দিনে নেমে পঞ্চম উইকেটে দুজনের জুটিটা হয় জম্পেশ। দুজনেই খেলেছেন রয়েসয়ে, দেখিয়েছেন দৃঢ়তা। ডাবল সেঞ্চুরি করে নাসির ছাড়িয়ে গেছেন প্রথম শ্রেণীতে তার আগের সর্বোচ্চ রানকে। ডাবল সেঞ্চুরির দিকে এগুচ্ছিলেন আরিফুলও। ১৬২ রান করা আরিফুলকে থামিয়েছেন কামরুল ইসলাম রাব্বি।

আরিফুল থামলেও দিনের বাকিটা সময়েও অবিচল নাসির। ধীমান ঘোষকে নিয়ে পার করেছেন শেষ ক’ওভার। ৪৬৭ বল খেলে ২৭০ রানে অপরাজিত থাকা নাসির মেরেছেন ২৯টি চার ও তিনটি ছক্কা।

রংপুরের জন্য এই ম্যাচ ড্র করলেই চলবে। তারা ধরে রাখতে পারবে প্রথম স্তরের অবস্থান। টেবিলের শেষ দল হওয়ায় ব্যাকফুটে থাকা বরিশালকে নেমে যেতে হবে দ্বিতীয় স্তরে। শেষ দিনে তাই তাড়াহুড়ো না করে ইনিংস আরও লম্বা করারই সুযোগ পাচ্ছেন নাসির। আর ৩০ রান করতে পারলেই পেয়ে যাবেন ক্যারিয়ারের প্রথম ট্রিপল সেঞ্চুরি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

বরিশাল ১ম ইনিংস: ৩৩৫ (সোহাগ ৯৯ , আল আমিন ৫০,; শুভাশিস ৩/৫৪,আরিফুল ৩/৬৮)

রংপুর ১ম ইনিংস: ৫৭০/৫ (ব্যাটিং তৃতীয় দিনশেষে) (নাসির ২৭০*, আরিফুল ১৬২; মনির ৩/১৫১)

 

 

Comments

The Daily Star  | English
Is human civilisation at an inflection point?

Is human civilisation at an inflection point?

Our brains are being reprogrammed to look for the easiest solutions to our most vexing social and political questions.

9h ago