‘পরমাণু পরীক্ষা কেন্দ্র’ ধ্বংস করল উত্তর কোরিয়া

বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে আমন্ত্রিত সাংবাদিকদের সামনে আজ (২৪ মে) নিজের ‘পরমাণু পরীক্ষা কেন্দ্র’ গুড়িয়ে দিলো উত্তর কোরিয়া। কোরীয় উপদ্বীপে রাজনৈতিক ও সামরিক উত্তেজনা কমানোর অংশ হিসেবে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।
North Korea nuclear test site
২৪ মে ২০১৮, উত্তর কোরিয়ার পুংগিয়ে-রি পরমাণু পরীক্ষা কেন্দ্রটি ‘পুরোপুরি’ ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে। ছবি: রয়টার্স

বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে আমন্ত্রিত সাংবাদিকদের সামনে আজ (২৪ মে) নিজের ‘পরমাণু পরীক্ষা কেন্দ্র’ গুড়িয়ে দিলো উত্তর কোরিয়া। কোরীয় উপদ্বীপে রাজনৈতিক ও সামরিক উত্তেজনা কমানোর অংশ হিসেবে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

পূর্ব ঘোষিত পরিকল্পনা অনুযায়ী দেশটির উত্তর-পূর্বে অবস্থিত পুংগিয়ে-রি পরমাণু পরীক্ষা কেন্দ্রটি ‘পুরোপুরি’ ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে। খবর, এএফপি’র।

বার্তা সংস্থাটি জানায়, আমন্ত্রিত সাংবাদিকদের একজন স্কাই নিউজের টম চেশায়ার একটি ব্রিটিশ ওয়েবসাইটে লিখেছেন, “বিকট শব্দে বিস্ফোরণ হয়। ধুলো উড়ে আসে। সঙ্গে আগুনের উত্তাপও। খুব বিকট শব্দ হয়েছিলো।”

দক্ষিণ কোরীয় সংবাদ সংস্থা ইয়োনহাপ ঘটনাস্থলে উপস্থিত সাংবাদিকদের বরাত দিয়ে জানায়, স্থানীয় সময় সকাল ১১টা থেকে বিকাল সোয়া ৪টা পর্যন্ত থেমে থেমে বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায়।

উত্তর কোরিয়ার ছয়টি পরমাণু বোমার পরীক্ষা এই পুংগিয়ে-রিতে হয়েছিল।

তবে এই ‘পরীক্ষা কেন্দ্রটিকে’ অকেজো করে দেওয়ার বিষয় নিয়ে বিশেষজ্ঞরা ভিন্ন মত প্রকাশ করেছেন। কারো মতে, এই কেন্দ্রটি কার্যকারিতা হারিয়ে ফেলেছিল অনেক আগেই। কেউ জানান, প্রয়োজন অনুযায়ী এই কেন্দ্রটিকে আবার তৈরি করে নেওয়া যাবে।

এছাড়াও, বিদেশ থেকে কোন নিরপেক্ষ পর্যবেক্ষককে এমন দৃশ্য অবলোকনের জন্যে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

কিন্তু, অন্যেরা বলছেন, কোন রকম পূর্ব শর্ত ছাড়াই উত্তর কোরিয়া এই ‘পরীক্ষা কেন্দ্র’ ধ্বংসের কাজটি করেছে। এর বিনিময়ে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে কিছুই চায়নি দেশটি। এর ফলে উত্তর কোরিয়ার আন্তরিকতারই প্রমাণ মিলেছে।

উল্লেখ্য, আগামী মাসে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের মধ্যে বৈঠকের প্রাক্কালে উত্তর কোরিয়ার এমন পদক্ষেপকে ইতিবাচক বলেই ধরে নেওয়া যেতে পারে।

Comments

The Daily Star  | English

Why was Abu Sayed shot dead in cold blood?

Why was Abu Sayed of Rangpur's Begum Rokeya University shot down by police? He was standing alone, totally unarmed with arms stretched out, holding no weapons but a stick

1h ago