পাকিস্তানকে উড়িয়ে দিল ভারত

ভারত-পাকিস্তান মানেই ছিল টান টান উত্তেজনার ম্যাচ। কিন্তু কালের বিবর্তনে তা আর নেই। সুপার ফোরের ম্যাচে পাকিস্তানকে রীতিমতো উড়িয়ে দিয়েছে ভারত। হেসেখেলে ৯ উইকেটের বড় জয় তুলে নিয়েছে রোহিত শর্মার দল। আর তাতেই এক ম্যাচ হাতে রেখে ফাইনালের টিকেট কাটে দলটি।

ভারত-পাকিস্তান মানেই ছিল টান টান উত্তেজনার ম্যাচ। কিন্তু কালের বিবর্তনে তা আর নেই। সুপার ফোরের ম্যাচে পাকিস্তানকে রীতিমতো উড়িয়ে দিয়েছে ভারত। হেসেখেলে ৯ উইকেটের বড় জয় তুলে নিয়েছে রোহিত শর্মার দল। আর তাতেই এক ম্যাচ হাতে রেখে ফাইনালের টিকেট কাটে দলটি।

গ্রুপ পর্বেও ম্যাড়ম্যাড়ে ম্যাচে ৭ উইকেটের বড় জয় পেয়েছিল ভারত। এদিন আরও বড় জয় পেল তারা। টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ২৩৭ রান করে পাকিস্তান। জবাবে দুই ওপেনারের সেঞ্চুরিতে ৩৯.৩ ওভার হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় ভারত।

পাকিস্তানের দেওয়া ২৩৭ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা পায় ভারত। দুই ওপেনার শেখর ধাওয়ান ও অধিনায়ক রোহিত শর্মা গড়েন ২১০ রানের জুটি। তাতেই জয় এক প্রকার নিশ্চিত হয়ে যায়। এরপর ধাওয়ান আউট হলেও আম্বাতি রাউডুকে নিয়ে জয় তুলেই মাঠ ছাড়েন রোহিত।

১০০ বলে ১১৪ রানের ইনিংস খেলে রান আউট হন ধাওয়ান। ১৬টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে এ রান করেন তিনি। ১১৯ বলে ১১১ রানের ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকেন রোহিত। তার ইনিংসে ছিল ৭টি চার ও ৪টি ছক্কা।

এর আগে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৫৫ রানেই তিন উইকেট হারিয়ে ফেলে পাকিস্তান। তবে চতুর্থ উইকেটে অধিনায়ক সারফারাজ আহমেদকে নিয়ে ১০৭ রানের দারুণ এক জুটি গড়েন শোয়েব মালিক। কিন্তু সারফারাজ আউট হওয়ার পর রানের গতি বাড়াতে পারেনি পাকিস্তান। শেষ দিকে ভারতীয় বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ২৩৭ রানেই শেষ হয় তাদের ইনিংস।

৯০ বলে দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৭৮ রানের ইনিংস খেলেন মালিক। ৪টি চার ও ২টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি। সারফারাজ করেন ৪৪ রান। এছাড়া ফাখার জামান ৩১ ও আসিফ আলি ৩০ রান করেন। ভারতের পক্ষে ২টি করে উইকেট পান জাসপ্রিত বুমরাহ, জাজভেন্দ্র চাহাল ও কুলদিপ যাদব।

Comments

The Daily Star  | English

President, PM greet countrymen on eve of Buddha Purnima

Buddha Purnima, the largest religious festival of the Buddhist community, will be observed tomorrow across the country

17m ago