'নিষেধাজ্ঞা শেষে সাকিব-স্যামুয়েলস ফিরতে পারলে আমাদের খেলোয়াড়রাও পারবে'

ভিন্ন ভিন্ন কারণে আইসিসির নিষেধাজ্ঞা পান ওয়েস্ট ইন্ডিজের মারলন স্যামুয়েলস ও বাংলাদেশের সাকিব আল হাসান। সাজার মেয়াদ শেষে দুই তারকাই ফিরে আসেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে।
ছবি: সংগৃহীত

ভিন্ন ভিন্ন কারণে আইসিসির নিষেধাজ্ঞা পান ওয়েস্ট ইন্ডিজের মারলন স্যামুয়েলস ও বাংলাদেশের সাকিব আল হাসান। সাজার মেয়াদ শেষে দুই তারকাই ফিরে আসেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। তাদের উদাহরণ টেনে হারুন রশিদ জানালেন, নিষেধাজ্ঞা কাটানোর পর পাকিস্তানের খেলোয়াড়দের জন্যও জাতীয় দলের দরজা খোলা থাকবে।

গত জানুয়ারি মাসে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) প্রধান নির্বাচক হিসেবে নিয়োগ পান হারুন। ছয় বছরের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ২৩ টেস্ট ও ১২ ওয়ানডে খেলেন তিনি। রোববার করাচিতে এক অনুষ্ঠানের পর গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে ৬৯ বছর বয়সী সাবেক ব্যাটার বলেন, 'যদি সাকিব আল হাসান ও মারলন স্যামুয়েলস তাদের নিষেধাজ্ঞার পর ফিরে আসতে পারে, তাহলে আমাদের খেলোয়াড়রা যারা তাদের সাজার মেয়াদ শেষ করেছে, তারাও ফিরতে পারবে।'

মূলত, বাঁহাতি পেসার মোহাম্মদ আমির ও বাঁহাতি ব্যাটার শারজিল খানের পাকিস্তান দলে ফেরা নিয়ে প্রশ্ন রাখা হয়েছিল হারুনের কাছে। স্পট-ফিক্সিংয়ের দায়ে দুজনকেই লম্বা সময়ের জন্য নিষিদ্ধ করেছিল আইসিসি। ২০১১ সালে আমির পেয়েছিলেন পাঁচ বছরের নিষেধাজ্ঞা। এমনকি ইংল্যান্ডে তাকে জেলও খাটতে হয়েছিল। শারজিলকে আড়াই বছরের স্থগিত নিষেধাজ্ঞাসহ পাঁচ বছরের নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয় ২০১৭ সালে।

দুজনই শাস্তির মেয়াদ শেষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরেন। তবে ২০২০ সালের ডিসেম্বরে টিম ম্যানেজমেন্টের বিরুদ্ধে মানসিক নির্যাতনের অভিযোগ তুলে অবসরের ঘোষণা দেন ৩০ বছর বয়সী আমির। এরপর আর তাকে পাকিস্তানের জার্সিতে দেখা যায়নি। ৩৩ বছর বয়সী শারজিলের জাতীয় দলে প্রত্যাবর্তন ঘটে ২০২১ সালে। ওই বছর ছয়টি টি-টোয়েন্টি খেলে জায়গা হারান তিনি।

হারুনের মতে, আমির ও শারজিলের জন্য পাকিস্তান দলে ফেরার রাস্তা বন্ধ হয়নি। তবে তাদেরকে আগে প্রয়োজনীয় কাজগুলো করতে হবে, 'আমির একজন অসাধারণ খেলোয়াড়। কিন্তু বল এখন তার কোর্টে, আমাদের নয়। যদি আমির পাকিস্তান ক্রিকেটকে সার্ভিস দিতে চায়, তাহলে আমাদের দরজা তার জন্য খোলা। প্রথমে তাকে তার অবসরের সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নিতে হবে। এতে আমরা জানতে পারব যে বেছে নেওয়ার জন্য কোন খেলোয়াড়রা আমাদের আছে।'

'ইমাদ ওয়াসিম (বাঁহাতি অলরাউন্ডার, ২০২১ সাল থেকে দলের বাইরে) ও শারজিল খানকে বেঁধে দেওয়া ফিটনেসের মানদণ্ড অনুসরণ করতে হবে এবং ফিরে আসার জন্য ঘরোয়া ক্রিকেট ও পিএসএলে (ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টি-টোয়েন্টি আসর পাকিস্তান সুপার লিগ) পারফর্ম করতে হবে।'

Comments

The Daily Star  | English

Dos and Don’ts during a heatwave

As people are struggling, the Met office issued a heatwave warning for the country for the next five days

40m ago