পেশাদার দলকে আলাদা করে তাতিয়ে দেওয়ার দরকার দেখছেন না পোথাস

টানা দুই ম্যাচ হেরে সিরিজ খুইয়ে বাংলাদেশ দল এখন কোণঠাসা। প্রথম ম্যাচের পর তামিম ইকবালের অবসর কাণ্ড মিলিয়ে মাঠের বাইরের পরিবেশও ছিল উত্তপ্ত। স্বাভাবিকভাবে তার কিছু না কিছু আঁচ লাগার কথা দলের ভেতরও।
Nic Pothas
সহকারী কোচ নিক পোথাস। ছবি: ফিরোজ আহমেদ

টানা দুই ম্যাচ হেরে সিরিজ খুইয়ে বাংলাদেশ দল এখন কোণঠাসা। প্রথম ম্যাচের পর তামিম ইকবালের অবসর কাণ্ড মিলিয়ে মাঠের বাইরের পরিবেশও বেশ অস্বস্তিকর। স্বাভাবিকভাবে তার কিছু না কিছু আঁচ লাগার কথা দলের ভেতরও। এমন পরিস্থিতিতে টিম ম্যানেজমেন্টের প্রথম দায়িত্ব থাকে দলকে চাঙ্গা করা। তবে সহকারি কোচ নিক পোথাস মনে করেন, বাংলাদেশের পেশাদার খেলোয়াড়দের আলাদা করে তাতিয়ে দেওয়ার কোন প্রয়োজন নেই।

সিরিজ শুরুর আগে আফগানিস্তানের বিপক্ষে পরিষ্কার ফেভারিট ছিল বাংলাদেশ। কিন্তু প্রথম ম্যাচে ব্যাটিং ব্যর্থতায় হারের পর বদলে যায় পুরো আবহ। পরদিন সাড়া জাগানো সংবাদ সম্মেলন করে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার ঘোষণা দেন তামিম ইকবাল।

একদিন পরই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপে নিজের সিদ্ধান্ত থেকে সরেও আসেন তিনি, তবে এই সিরিজে আর ফেরেননি। তবে তার অবসর ও তা প্রত্যাহার সম্পর্কিত নাটকীয়তায় যে পরিবেশ তৈরি হয় তা মাঠের ক্রিকেট মনোযোগ সরিয়ে নেয়।

ক্রিকেটাররা মুখের কথা অবশ্য প্রভাব না পড়ার কথা বলেছিলেন। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে দলের শরীরী ভাষা আর পারফরম্যান্স বলছে ভিন্ন কথা। আফগানিস্তানের কাছে ১৪২ রানে বড় হার তৈরি করেছে অনেক প্রশ্ন। আপাতত বাংলাদেশ দল আর সুখের সংসার নয়।

মঙ্গলবার শেষ ওয়ানডের আগে অনুশীলনেও ঘাটতি থাকছে। সোমবার যে অনুশীলনের সুযোগই মেলেনি। রোববার বিশ্রামে কাটিয়ে দেওয়ার পর সোমবার সকাল থেকে ছিল দলের অনুশীলন। তবে প্রবল বৃষ্টি পুরো সকাল ভাসিয়ে নেওয়ায় পরিকল্পনা হয়েছে ভণ্ডুল।

দুপুরে কেবল সংবাদ মাধ্যমে কথা বলতে মাঠে আসেন পোথাস। এই প্রোটিয়া কোচ জানান, হারলেও দলের আবহে হেরফের হচ্ছে না, শেষ ম্যাচ জিততে সমস্ত প্রস্তুতিই আছে তাদের,  'আমরা পেশাদার খেলোয়াড়দের নিয়ে কথা বলছি। এই ছেলেরা খুবই পেশাদার তাদের কাজ নিয়ে। আমাদেরকে খুব বেশি তাতিয়ে দেওয়ার দরকার নেই। তারা সব সময়ই প্রস্তুত। এরা দুর্দান্ত এক দল খেলোয়াড়।'

পোথাস দলকে সমর্থন দেওয়ার পাশাপাশি মনে করিয়ে দিয়েছেন আগের সাফল্যের কথা, আহবান করেছেন দুই ম্যাচ দিয়ে বিচার না করার, 'আমরা দ্রুতই ভুলে গেছি ইংল্যান্ড (সিরিজ জেতেনি), ভারত ও আয়রল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ জিতেছি। আমরা বিশ্বমানের ক্রিকেটারদের স্রেফ দুই ম্যাচ দিয়ে বিচার করছি। আমাদেরকে লম্বা সময় নিয়ে বিচার করা নিশ্চিত করতে হবে। কেবল দুই ম্যাচ না।'  

 

Comments

The Daily Star  | English

Peacekeepers can face non-deployment for rights abuse: UN

The UN peacekeepers can face non-deployment and even repatriation if the allegations of human rights against them are substantiated

14m ago