মিরপুর টেস্ট

আলোকস্বল্পতায় খেলা বন্ধের আগে দুই উইকেট হারানোর আক্ষেপ

শুক্রবার তৃতীয় দিনে খেলা হয়েছে স্রেফ ৩২.২ ওভার। ৫ উইকেটে ৫৫ রান নিয়ে দিন শুরুর পর নিউজিল্যান্ড ১৮০ রানে গুটিয়ে যায়। জবাবে ২ উইকেটে ৩৮ রান তুলেছে বাংলাদেশ।
Najmul Hossain Shanto
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

প্রতিকূল আবহাওয়া আর স্পিনারদের দাপট, এসবের ভিড়ে উজ্জ্বল ব্যতিক্রম হয়ে গ্লেন ফিলিপসের একটা দ্যুতিময় ইনিংস। মিরপুর টেস্টের শিরোনামে আপাতত এর বেশি কিছু নেই। সারা দিনে টেনেটুনে এক সেশনের মতন খেলা হলো। তাতে কোন দলকেই স্পষ্টভাবে এগিয়ে রাখা যাচ্ছে না।

শুক্রবার তৃতীয় দিনে খেলা হয়েছে স্রেফ ৩২.২ ওভার। ৫ উইকেটে ৫৫ রান নিয়ে দিন শুরুর পর নিউজিল্যান্ড ১৮০ রানে গুটিয়ে যায়। জবাবে ২ উইকেটে ৩৮ রান তুলেছে বাংলাদেশ। আলোকস্বল্পতায় ২টা ৪৫ মিনিটে খেলা বন্ধ হওয়ার পর অনেক অপেক্ষা করে সোয়া চারটায় দিনের খেলার সমাপ্তি টানা হয়।

৩০ রানে এগিয়ে থাকা লিডটা চতুর্থ দিন অন্ততো দুইশো ছাড়িয়ে নিয়ে যেতে চায় স্বাগতিকরা। ব্ল্যাকক্যাপসদের হয়ে ৮৭ রান করা ফিলিপস দিনের খেলা শেষে এসে বলে গেছেন, এই উইকেটে ১৮০ থেকে দুইশো রান তাড়া করা হবে ভীষণ কঠিন।  সব মিলিয়ে খেলায় সমতা বলাই যায়।

৮ রানে পিছিয়ে ইনিংস শুরু করা বাংলাদেশ প্রথম ওভারেই খায় ধাক্কা। এজাজ প্যাটেলের বলে স্লিপে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন মাহমুদুল হাসান জয়।

Mirpur sher-e Bangla
ছবি: স্টার

জাকির হাসান ছিলেন দ্রুত রান তোলার তালে। তার সঙ্গে যোগ দিয়ে ইনিংস বড় করতে পারেননি নাজমুল হোসেন শান্ত। থিতু হয়ে টিম সাউদির বল মিড অনে ক্যাচ উঠিয়ে বিদায় নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক (২৪ বলে ১৫)। ৩৮ রানে দুই উইকেট পড়ার খানিক পর আলোকস্বল্পতায় বন্ধ হয়ে যায় খেলা।

এর আগে যে ২৫ ওভার খেলা হয়েছে তাতে হাইলাইটসের পুরোটা ফিলিপসের। কিউই ব্যাটার অপরাজিত ছিলেন ৫ রানে। এদিন যোগ করেন আরও ৮৩ রান। ৯ চারের সঙ্গে মেরেছেন ৪ ছক্কা। ১২০ স্ট্রাইকরেট নিয়ে খেলেছেন টি-টোয়েন্টির মতন।

৬ষ্ঠ উইকেটে ড্যারেল মিচেলের সঙ্গে ৪৯, ৮ম উইকেটে কাইল জেমিসনের সঙ্গে ৫৫, ৯ম উইকেটে টিম সাউদির সঙ্গে ২৮ রানের তিনটি গুরুত্বপূর্ণ জুটি এনে সফরকারীদের ম্যাচে রাখেন তিনি।

দিনের খেলা শেষে কথা বলতে এসে বাংলাদেশের নাঈম হাসান জানান, ভেজা দিনেও উইকেট ব্যাট করার জন্য প্রথম দিনের চেয়ে বরং কিছুটা ভালো ছিলো। এই উইকেটে যতটা সম্ভব ব্যাটিং চালিয়ে যেতে চান তারা। সিরিজ জয় নিশ্চিত করতে এমন একটা লক্ষ্য প্রতিপক্ষকে দিতে চায় যা টপকানো হবে ভীষণ চ্যালেঞ্জের। 

Comments

The Daily Star  | English

Lifting curfew depends on this Friday

The government may decide to reopen the educational institutions and lift the curfew in most places after Friday as the last weekend saw large-scale violence over the quota-reform protest.

12h ago