আম্পায়ারকে ‘ভয় দেখিয়ে’ নিষিদ্ধ কারান আপিল করে হারলেন

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) রোববার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। তারা জানিয়েছে, আম্পায়ারসহ ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্বে থাকা অফিসিয়ালদের সম্মান করা অপরিহার্য।
tom curran

বিগ ব্যাশে ম্যাচ শুরুর আগে আম্পায়ারকে 'ভয় দেখিয়ে' চার ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছেন টম কারান। সিডনি সিক্সার্সের ইংলিশ পেসার এরপর শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করেছিলেন। তবে আপিলে হেরে গেছেন তিনি।

ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি আসর বিগ ব্যাশ লিগের পরিচালনার দায়িত্বে থাকা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) রোববার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। তারা জানিয়েছে, আম্পায়ারসহ ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্বে থাকা অফিসিয়ালদের সম্মান করা অপরিহার্য।

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার জেনারেল ম্যানেজার অ্যালিস্টার ডবসন বলেন, 'আম্পায়াররা ক্রিকেটের প্রাণশক্তি এবং খেলাটির সকল স্তরে তাদেরকে সম্মান ও প্রশংসা করা খেলোয়াড়দের জন্য অপরিহার্য। আপিলের পর টমের প্রকাশ করা অনুশোচনাকে আমরা স্বীকার করছি এবং তাকে সিক্সার্সের রঙে ফিরতে দেখার অপেক্ষায় রয়েছি।'

গত বুধবার হোবার্ট হারিকেন্সের বিপক্ষে সিক্সার্সের ম্যাচ শুরুর আগের ঘটনা এটি। কারানকে দেওয়া নিষেধাজ্ঞার রায়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া বলেছিল, খেলা শুরুর আগে ওয়ার্মআপের সময় তিনি ম্যাচের মূল পিচের পাশে আরেক পিচে বল করছিলেন। তবে তিনি বারবার মূল পিচের অংশের ওপর এসে পড়ছিলেন।

পিচ দেখাশোনার দায়িত্বে থাকা চতুর্থ আম্পায়ার তখন কারানকে সতর্ক করেন। সেটা না মেনে মূল পিচের দিকে গিয়ে ওয়ার্মআপ করতে থাকেন তিনি। আম্পায়ার কারানকে সরে আগের জায়গায় যেতে বললেও তাতে কান দেননি। এমনকি আম্পায়ারকে তোয়াক্কা না করে তিনি তার দিকে দৌড়ে এগোতে থাকেন। সেসময় আম্পায়ার সংঘর্ষ এড়াতে ডানদিকে সরে যান।

বিগ ব্যাশের আচরণবিধির ২.১৭ ধারা ভাঙার অভিযোগ আনা হয় কারানের বিপক্ষে। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করে শুনানিতে অংশ নেন তিনি, তাকে দোষী সাব্যস্ত করে চার ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়।

এরপর রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করার সিদ্ধান্ত নেয় সিক্সার্স। দলটির প্রধান কর্মকর্তা র‍্যাচেল হেইন্স জানিয়েছিলেন, কারান ইচ্ছাকৃতভাবে কোনো অফিসিয়ালকে ভয় দেখাননি। কাজেই তাকে মাঠে ফেরানোর চেষ্টা চালানো হবে।

Comments

The Daily Star  | English
Our dream is to make Bangla an official UN language: FM

Our dream is to make Bangla an official UN language: FM

In a heartfelt tribute to the heroes of the 1952 Language Movement, Foreign Minister Hasan Mahmud today articulated Bangladesh's aspiration to accord Bangla the status of an official language of the United Nations

1h ago