'প্রথম ম্যাচ হারলেই লাকি'

প্রথম ম্যাচ হেরে বিপিএল শুরু করলে শেষ পর্যন্ত দল ভালো খেলে বলে বিশ্বাস করে কুমিল্লা ভিক্টরিয়ান্স
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) কুমিল্লা ভিক্টরিয়ান্সের যাত্রা তৃতীয় আসর থেকে। এরপর প্রায় নিয়মিত চিত্র প্রথম ম্যাচ হেরে শুরু করেছে দলটি। গত আসরে তো প্রথম তিন ম্যাচে টানা হার। তারপরও চ্যাম্পিয়ন হয় তারা। তাই হেরে শুরু করাকেই সৌভাগ্যজনক বলে মনে করে দলটি। এমনই বিস্ময়কর এক মন্তব্য করেছেন দলের অধিনায়ক লিটন কুমার দাস।

শুক্রবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচে নবাগত দুর্দান্ত ঢাকা বিপক্ষে খেলেছে কুমিল্লা। কিন্তু প্রথমবারের মতো বিপিএল খেলতে আসা দলটির কাছে ৫ উইকেটে হেরে যায় দলটি। প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৪৩ রান করে গতবারের চ্যাম্পিয়নরা। জবাবে ৩ বল হাতে রেখে জয়ের বন্দরে নোঙ্গর করে ঢাকা।

আর এমন হারের পরও ইতিবাচক কিছু দেখতে পাচ্ছেন লিটন। মূলত দলটির পুরনো ইতিহাসের কারণেই এমনটা ভাবছেন তিনি। বিপিএলে এখন পর্যন্ত সাতটি আসরে অংশ নিয়ে পাঁচবারই প্রথম ম্যাচে হেরে গেছে তারা। আর হার দিয়ে শুরু করাকে নিজের জন্য সৌভাগ্য মনে করেন কোচ সালাহউদ্দিন। আসর শুরুর আগে অধিনায়ক লিটনের সঙ্গে আপালকালে এমনটাই বলেছিলেন কোচ।

সেই কথাটাই সংবাদ সম্মেলনে বললেন লিটন, 'প্রত্যেকটা হারই তো কষ্টের। আমি অধিনায়ক আমি চাইব ম্যাচ জিততে। এই দিক থেকে তো খারাপ লাগবেই যে হেরে গেছি। তবে ব্যাক মাউন্ডে ছিল কুমিল্লা সবসময় প্রথম ম্যাচ হারে। আমি ওইদিন স্যারের সঙ্গে কথা বলছিলাম, প্রথম ম্যাচ আমরা এমনিই হেরে যাই। হারলেই নাকি স্যারের জন্য লাকি।'

এছাড়া পুরো দলের চিত্রটাও ভালোভাবে দেখতে পাওয়াকেও ইতিবাচক হিসেবে নিয়েছেন লিটন, 'এই দিক থেকে একটা জিনিস ভালো হয়েছে যে আমরা লো স্কোরিং মানে মোটামুটি স্কোর করেও বোলাররা আমাদের (আত্মবিশ্বাস) দিয়েছে যে, দেখ আমরাও পারি। একটা জিনিস যে আমরা পুরো দল দেখতে পারলাম যে কোথায় ঘাটতি আছে, কোথায় শক্তি। এখন আমরা বসে স্যার আমরা আলোচনা করে তৈরি করতে পারব।  দ্বিতীয় ম্যাচে আশা করি ভালো কিছু হবে।'

Comments

The Daily Star  | English
BNP postpones April 26 rally

Police raiding BNP's Nayapaltan office

Police have started raiding BNP's Nayapaltan headquarters

1h ago