ফুটবল

বায়ার্নের বিপক্ষে শুরু থেকেই খেলতে চেয়েছিলেন এমবাপে

ইনজুরির কারণে আক্রমণভাগের তিন তারকারই খেলা নিয়ে ছিল শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত লিওনেল মেসি ও নেইমার শুরুর একাদশে থাকলেও দ্বিতীয়ার্ধে ৫৭তম মিনিটে কার্লোস সোলারের পরিবর্তে মাঠে নামেন এমবাপে।

দ্বিতীয়ার্ধে গোল হজমের পরপরই মাঠে নামেন কিলিয়ান এমবাপে। এর মিনিট ১০ পর থেকেই বদলে যেতে থাকে ম্যাচের পরিস্থিতি। শেষ ২০ মিনিটে তো প্রবল চাপ সৃষ্টি করেছিল পিএসজি। দুইবার বল জালেও জড়িয়েছিলেন এমবাপে। কিন্তু অফসাইডের কারণে গোল মিলেনি। শুরু থেকে খেললে হয়তো ম্যাচের ফলাফল ভিন্নও হতে পারতো।

মঙ্গলবার রাতে পার্ক দে প্রিন্সেসে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোর ম্যাচে পিএসজিকে ১-০ গোলের ব্যবধানে হারায় বায়ার্ন মিউনিখ। ম্যাচের একমাত্র গোলটি করেন পিএসজির সাবেক তারকা কিংসলে কোমান। ঘরের মাঠে হেরে যাওয়ায় পরবর্তী রাউন্ডে ওঠার সম্ভাবনা অনেকটাই ক্ষীণ হয়ে গেছে। আগামী ৮ মার্চ অ্যালিয়াঞ্জ অ্যারেনায় ফিরতি লেগে জিততেই হবে প্যারিসের দলটিকে।

আগের দিন ইনজুরির কারণে আক্রমণভাগের তিন তারকারই খেলা নিয়ে ছিল শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত লিওনেল মেসি ও নেইমার শুরুর একাদশে থাকলেও দ্বিতীয়ার্ধে ৫৭তম মিনিটে কার্লোস সোলারের পরিবর্তে মাঠে নামেন এমবাপে। এরপরই গতি পায় পিএসজি। অথচ এর আগে লক্ষ্য তো দূরের কথা কেবল দুটি শট নিতে পেরেছিল তারা।

ম্যাচে শুরুতে নামতে চেয়েছিলেন না কি-না জানতে চাইলে এমবাপে বলেন, 'আমি চেয়েছিলাম। কিন্তু কখনও কখনও আপনি যা করতে পারেন তাতে আপনাকে সন্তুষ্ট থাকতে হবে, এবং আমি যা করতে পারি তাই।'

তবে এদিন মাঠে নামারই কথা ছিল না এমবাপে। গোল হজমের পরই তাকে মাঠে নামান কোচ ক্রিস্তফ গালতিয়ের।

'আমার খেলার কথা ছিল না কিন্তু আমি খেলতে এবং আমার সতীর্থদের সাহায্য করতে চেয়েছিলাম। আমরা সবকিছু করেছি, আমরা রাত-দিন পরিশ্রম করেছি যাতে খেলার জন্য সময় পাই,' বলেন এমবাপে।

এমন পরিস্থিতিতে নিজের অনুভূতি প্রকাশ করে এ তরুণ আরও বলেন, 'আমি কিছুটা উদ্বিগ্ন ছিলাম, কিন্তু আমার যা ছিল তা আমি দিয়েছি এবং আমার কিছুই অবশিষ্ট নেই। এখন আমাদের চালিয়ে যেতে হবে এবং ভালোভাবে পুনরুদ্ধার করতে হবে।'

ঘরের মাঠে হারলেও এখনও কোয়ার্টার ফাইনালের স্বপ্ন দেখছেন এমবাপে, 'আমরা যেমন বলেছিলাম, আমাদের ইতিবাচক দিকগুলো নিতে হবে। এটা দুই লেগের খেলা। প্রথম লেগে যা হয়েছে আমরা তা পরিবর্তন করতে পারব না। আমরা কোয়ালিফাই করার জন্য সেখানে যাব। আমরা জানি একটি সম্ভাবনা রয়েছে। কোয়ালিফাই করার ভাল সম্ভাবনা রয়েছে। তাই আমরা অনেক শক্তি এবং দৃঢ় সংকল্প নিয়ে সেখানে যাব।'

'এটি কামব্যাকের কিছু না। অ্যাওয়ে গোল আর নেই। আমাদের একটি গোল করতে হবে এবং তাহলেই আমরা সমতায় থাকব, তাই আমাদের সেখানে যেতে হবে এবং জিততে হবে। আমাদের খেলাটা খেলতে হবে, আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলতে হবে, যা আমরা জানি কীভাবে করতে হয় এবং সেখানে গিয়ে জেতার চেষ্টা করব,' যোগ করেন এমবাপে।

Comments

The Daily Star  | English

The taste of Royal Tehari House: A Nilkhet heritage

Nestled among the busy bookshops of Nilkhet, Royal Tehari House is a shop that offers students a delectable treat without burning a hole in their pockets.

2h ago