ফুটবল

হালান্ডের হ্যাটট্রিকে ম্যান সিটির চারে চার

তার দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে ফুলহ্যামকে উড়িয়ে দিল ম্যানচেস্টার সিটি।
ছবি: এএফপি

মৌসুমের প্রথম হ্যাটট্রিকের জন্য বেশিদিন অপেক্ষা করতে হলো না আর্লিং হালান্ডকে। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ষষ্ঠ ম্যাচে এসেই পেয়ে গেলেন সেই স্বাদ। তার দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে ফুলহ্যামকে উড়িয়ে দিল ম্যানচেস্টার সিটি। ধারাবাহিকতা বজায় রেখে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শিরোপাধারীরা পেল টানা চতুর্থ জয়ের দেখা।

শনিবার রাতে ঘরের মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে ৫-১ ব্যবধানে জিতেছে সিটিজেনরা। প্রথমার্ধে হুলিয়ান আলভারেজের গোলে তারা এগিয়ে যাওয়ার পর সফরকারীদের সমতায় ফেরান টিম রিম। বিরতির ঠিক আগে স্বাগতিকরা লিড পুনরুদ্ধার করে নাথান আকের সুবাদে। দ্বিতীয়ার্ধ নিজের করে নেন সিটির তরুণ নরওয়েজিয়ান স্ট্রাইকার হালান্ড। একে একে তিনবার জাল খুঁজে নেন তিনি।

হালান্ডের প্রতিটি গোলই ছিল বাঁ পায়ের শটে। মাঝেরটি তিনি করেন পেনাল্টি থেকে। গোটা ম্যাচে মাত্র ১৭ বার বল স্পর্শ করেন। পুরো সময়ে তার দেওয়া ছয়টি পাসের মধ্যে সফল হয় চারটি।

এবারের আসরে ২৩ বছর বয়সী হালান্ডের গোলসংখ্যা বেড়ে হলো ছয়টি। অনুমিতভাবেই তিনি আছেন গোলদাতাদের তালিকায় সবার উপরে। গত মৌসুমে ৩৫ ম্যাচে ৩৬ গোল করে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার জিতেছিলেন তিনি। প্রিমিয়ার লিগের এক মৌসুমে এত গোল করার রেকর্ড নেই আর কারও।

প্রিমিয়ার লিগে সব মিলিয়ে কেবল ৩৯ ম্যাচ খেলেই ৫০ গোলে অবদান রাখলেন হালান্ড। এর মধ্যে নিজে করেছেন ৪১টি, সতীর্থদের দিয়ে করিয়েছেন আরও নয়টি। এটি একটি নতুন রেকর্ড। আগের কীর্তি ছিল অ্যান্ডি কোলের দখলে। ৫০ গোলে ভূমিকা রাখতে তার লেগেছিল ৪৩ ম্যাচ।

চলতি আসরে চার ম্যাচে পূর্ণ ১২ পয়েন্ট অর্জন করেছে ম্যান সিটি। তারা ধরে রেখেছে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষস্থান। সমান ম্যাচে ফুলহ্যামের পয়েন্ট ৪। তাদের অবস্থান পয়েন্ট তালিকার ১৩ নম্বরে।

Comments