টেনিস

টেনিস থেকে অবসরের ঘোষণা দিলেন ফেদেরার

হাঁটুর চোট গত তিন বছর ধরে ভোগাচ্ছে তাকে। অধিকাংশ সময় থাকতে হচ্ছে কোর্টের বাইরে।
roger federer
ছবি: এএফপি

হাঁটুর চোট গত তিন বছর ধরে ভোগাচ্ছে তাকে। অধিকাংশ সময় থাকতে হচ্ছে কোর্টের বাইরে। এমন অবস্থায় বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারকে আর টেনে নিতে চাচ্ছেন না রজার ফেদেরার। অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন ৪১ বছর বয়সী সুইজারল্যান্ডের কিংবদন্তি। লেভার কাপ দিয়ে প্রতিযোগিতামূলক টেনিসকে বিদায় জানাবেন তিনি।

বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এক খোলা চিঠিতে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন ফেদেরার। আগামী সপ্তাহে লন্ডনে শুরু হবে লেভার কাপ। এই আসরের পর আর প্রতিযোগিতামূলক টেনিসে দেখা যাবে না ২০ বারের গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ীকে।

বিদায়ী বার্তায় ফেদেরার বলেছেন, চোটের সঙ্গে লড়াইয়ে পেরে উঠছেন না তিনি, 'আপনারা অনেকেই জানেন যে গত তিন বছরে আমাকে চোট ও অস্ত্রোপচারের মতো চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হয়েছে। আমি পুরোপুরি প্রতিযোগিতামূলক রূপে ফিরে আসার জন্য কঠোর পরিশ্রম করেছি। তবে আমি আমার শারীরিক ক্ষমতা ও সীমা জানি। আর ইদানীং সেটার বার্তা আমার কাছে স্পষ্ট হয়েছে। আমার বয়স ৪১ বছর।'

'আমি ২৪ বছরের বেশি সময়ে ১৫০০টিরও বেশি ম্যাচ খেলেছি। টেনিস আমাকে দুহাত ভরে উপহার দিয়েছে যা আমি কখনও স্বপ্নেও ভাবিনি এবং এখন আমাকে বুঝতে হবে যে আমার প্রতিযোগিতামূলক ক্যারিয়ার শেষ করার সময় কখন। আগামী সপ্তাহে লন্ডনে লেভার কাপ হবে আমার শেষ এটিপি আসর। আমি অবশ্যই ভবিষ্যতে আরও টেনিস খেলব। তবে তা গ্র্যান্ড স্ল্যাম বা কোনো (এটিপি) প্রতিযোগিতায় নয়।'

১৯৯৮ সালে মাত্র ১৬ বছর বয়সে শুরু হয়েছিল ফেদেরারে পেশাদার ক্যারিয়ারের যাত্রা। এরপর দুই দশক ধরে টেনিসপ্রেমীদের মুগ্ধ করেছেন তিনি। তার সঙ্গে রেকর্ড ২২টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী স্প্যানিশ তারকা রাফায়েল নাদালের লড়াই পৌঁছায় অনন্য উচ্চতায়। পরে যুক্ত হন ২১টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী সার্বিয়ান তারকা নোভাক জোকোভিচ। তারা তিনজন লম্বা সময় ধরে রাজত্ব করছেন ছেলেদের টেনিসের একক বিভাগে।

প্রতিদ্বন্দ্বীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন ফেদেরার, 'আমি কোর্টে আমার প্রতিপক্ষদেরও ধন্যবাদ জানাতে চাই। আমি ভাগ্যবান ছিলাম যে এত মহাকাব্যিক ম্যাচ খেলতে পেরেছি, যেগুলো আমি কখনওই ভুলব না। আমরা আবেগ ও তীব্রতার সঙ্গে ন্যায্যভাবে লড়াই করেছি। আমি সব সময় এই খেলার ইতিহাসকে সম্মান করার যথাসাধ্য চেষ্টা করেছি। আমি অত্যন্ত কৃতজ্ঞ বোধ করছি।'

ফেদেরারের ঝুলিতে রয়েছে বহু রেকর্ড। যদিও নাদাল ও জোকোভিচের মতো তারকার সঙ্গে একই সময়ে খেলেছেন তিনি। টানা ২৩৭ সপ্তাহ র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থাকার কীর্তি তার দখলে। সবচেয়ে বেশি বয়সে (৩৬ বছর) র‍্যাঙ্কিংয়ের এক নম্বরে ওঠার রেকর্ড ফেদেরারের। সবুজ ঘাসের কোর্টে সর্বোচ্চ আটবার উইম্বলডন জেতার কীর্তিও রয়েছে তার নামের পাশে। এছাড়া, ছয়টি অস্ট্রেলিয়ান ওপেন, পাঁচটি ইউএস ওপেন ও একটি ফরাসি ওপেনের শিরোপা উঁচিয়ে ধরেছেন তিনি।

অবসরের সিদ্ধান্ত নেওয়া যে সহজ ছিল না সেটা ফুটে উঠেছে ফেদেরারের কথায়, 'এটা একটা অম্ল-মধুর সিদ্ধান্ত। কারণ, টেনিস আমাকে যা দিয়েছে তা আমি মিস করব। কিন্তু একইভাবে উদযাপন করার মতো অনেক কিছুই আছে।'

'আমি নিজেকে পৃথিবীর সবচেয়ে ভাগ্যবান মানুষদের একজন মনে করি। টেনিস খেলার জন্য বিশেষ প্রতিভা আমাকে দেওয়া হয়েছিল এবং আমি এমন একটা পর্যায়ে সেটার ছাপ রেখেছি যা আমি কখনও কল্পনাও করিনি। আমি যা ভেবেছিলাম তার চেয়ে অনেক বেশি সময় ধরে খেলেছি।'

ফেদেরার ক্যারিয়ারের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম জেতেন ২০০৩ সালের উইম্বলডনে। তার সবশেষ গ্র্যান্ড স্ল্যাম শিরোপা ছিল ২০১৮ সালের অস্ট্রেলিয়ান ওপেন। গত দুই বছরে তার হাঁটুতে তিনটি অস্ত্রোপচার করানো হয়েছে। ২০২১ সালের উইম্বলডনের কোয়ার্টার ফাইনালে পোল্যান্ডের হুবার্ত হুরকাজের কাছে হারের পর থেকে কোনো প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচ খেলেননি তিনি।

Comments