ভারতকে টুপিখোলা অভিনন্দন জানিয়ে শোয়েব বললেন পাকিস্তানের জন্য ‘অপমানজনক হার’

মাঠে বসেই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের কাছে পাকিস্তানের বড় হার দেখেছেন সাবেক পাকিস্তানি গতি তারকা শোয়েব আখতার। নিশ্চিতভাবে তার বুকে লেগেছে যন্ত্রণা। বিশাল এই হারকে তাই ‘অপমানজনক’ আখ্যা দিয়েছেন তিনি।
ভারতকে অভিনন্দন জানালেন শোয়েব আক্তার

মাঠে বসেই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের কাছে পাকিস্তানের বড় হার দেখেছেন সাবেক পাকিস্তানি গতি তারকা শোয়েব আখতার। নিশ্চিতভাবে তার বুকে লেগেছে যন্ত্রণা। বিশাল এই হারকে তাই 'অপমানজনক' আখ্যা দিয়েছেন তিনি। করেছেন কিছু সমালোচনা। সেই সঙ্গে প্রতিপক্ষ ভারতকে প্রশংসায় ভাসিয়ে জানিয়েছেন টুপি খোলা অভিনন্দন।

সোমবার এশিয়া কাপের সুপার ফোরের রিজার্ভ ডেতে হয় একপেশে লড়াই। ভারতের ৩৫৬ রানের জবাবে স্রেফ ১২৮ রান করতে পারে পাকিস্তান।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে নিয়মিত খেলা নিয়ে আলোচনা করা শোয়েব এই ম্যাচ শেষেও স্বাভাবিকভাবে হাজির হয়েছিলেন। তাতে তার হতাশার মাঝে ছিল সমালোচনার ঝাঁজ,  'বৃষ্টির জন্য প্রার্থনা করছিলাম। চেয়েছিলাম বৃষ্টি হোক, প্রাণটা বাঁচুক। কিন্তু এভাবে আসলে হয় না। পাকিস্তান একদম অপমানজনকভাবে হেরেছে। ১২৮ রানে অলআউট হয়েছে। এটা খুবই শঙ্কার ব্যাপার। এত ভালো ব্যাটিং উইকেটে টস জিতে কেন ফিল্ডিং নিল পাকিস্তান? ভারতের মতো এত ভালো দলকে ফেরার সুযোগ কেন দিল? এটা আমার বুঝে আসে না। এর পরিমাণ দেখতে পাচ্ছেন।'

এরপরেই অবশ্যই নিজেকে সামলে নিয়ে ভারকে প্রশংসায় ভাসান তিনি, 'অবশ্য এক ম্যাচ দিয়ে পাকিস্তানকে বাতিল করা যাবে না, ভারতকেও না। ভারতকে অনেক অভিনন্দন। তাদের জন্য প্রাপ্য ছিল এই জয়, কারণ তারা দুর্দান্ত খেলেছে। ব্যাটে-বলে অসাধারণ ছিল। ভারতের বোলিং লাইনআপ বার্তা দিয়েছে তারা আগ্রাসী খেলবে। দ্রুত আউট করবে। একজন পেসার হিসেবে দেখতে আমার ভালো লেগেছে এটা। বুমরা দারুণ স্পেল করেছে, সিরাজও। কুলদীপ পরে এসে ভালো করেছে।'

সবার আগে একশো মাইল গতিতে বল করে রেকর্ড গড়া শোয়েব সাম্প্রতিক সময়ের পেসারদের শক্তি, মাশল মেমোরি নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন,  'হারিস রউফের চোট চিন্তার বিষয়। দ্বিতীয় স্পেলে আসেনি। এদের দোষ দিচ্ছি না। সাফাইও না। এরা কতটা ম্যাচ খেলছে বছরে। ১৩, ১৪ বা ১৫ ওয়ানডে? ওয়াসিম-ওয়াকার ভাই এক মৌসুমেই ৫০০-৬০০ ওভার বল করতেন। ১০ ওভারের মাশল মেমোরি এখন নেই। আমার মনে হয় এখানে ঘাটতি আছে। আমি সব সময় বলি ৪ ওভারের বোলার বোলার নয়, ১০ ওভারের বোলার হতে হবে।'

পাকিস্তানের বিপক্ষে ৯৪ বলে ১২২ রানের ইনিংস খেলেন কোহলি। এই পথে ওয়ানডেতে দ্রুততম ১৩ হাজার রানও স্পর্শ করেন। বিশাল পুঁজির নিয়ে পরে ২৫ রানে ৫ উইকেট নিয়ে রিষ্ট স্পিনার কুলদীপ যাদব ধসিয়ে দেন পাকিস্তানকে।

শোয়েবের আলাদা বাহবা পেয়েছেন এই দুজন,   'ভারতকে টুপিখোলা অভিবাদন। কোহলি অসাধারণ প্রত্যাবর্তন করেছে। সে দুর্দান্ত ক্রিকেটার! এটা নিয়ে কোনো সংশয় নেই। লোকেশ রাহুলও সেঞ্চুরি করেছে। এখান থেকে ছেলেদের শেখার আছে যে কোহলি রান করলে বড় ইনিংস খেলবে। আরও ওভার থাকলে দেড়শো করত। ভারত যেকোনো জায়গায় এমন রান করার সামর্থ্য রাখে।'

'কুলদীপকে বলব সাবাশ। তাকে কখনই বাদ দেয়া উচিত না। আমি বুঝি না চাহাল, কুলদীপকে কেন তারা বাইরে রাখে। আজ প্রমাণ হলো সে কত ভালো।'

শোয়েব আশায় আছেন এশিয়া কাপে আবার দেখা হবে ভারত-পাকিস্তানের। সেখানে হবে স্নায়ুযুদ্ধ,  'এখন দুই দলকেই ফাইনালে যেতে হবে। ফাইনালে হবে স্নায়ুর পরীক্ষা। ভারতকে আবার অভিনন্দন। আমার মনে হয় পাকিস্তান সিদ্ধান্ত নেওয়ায় উন্নতি দেখাবে।'

Comments

The Daily Star  | English

PM assures support to cyclone-hit people

Prime Minister Sheikh Hasina today distributed relief materials among the cyclone-affected people reiterating that her government and the Awami League party will stand by them as long as they need the assistance to rebuild their lives

42m ago