পরিবেশ

চট্টগ্রামে বন দখল চেষ্টার অভিযোগে গ্রেপ্তার ১

চট্টগ্রাম নগরীর নাসিরাবাদ এলাকায় সংরক্ষিত বনভূমি দখলের চেষ্টাকালে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে বন বিভাগ।
গ্রেপ্তার রফিকুল ইসলাম রতন। ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রাম নগরীর নাসিরাবাদ এলাকায় সংরক্ষিত বনভূমি দখলের চেষ্টাকালে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে বন বিভাগ।

গ্রেপ্তার আসামি রফিকুল ইসলাম রতনকে আজ বুধবার আদালতে পাঠানো হয়। তিনি অসুস্থ থাকায়, আদালত তাকে হাসপাতালে ভর্তির নির্দেশ দেন।

চট্টগ্রাম উত্তর বন বিভাগের সামাজিক বনায়ন নার্সারি ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. নাজমুল হাসান দ্য ডেইলি স্টারকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, 'নাসিরাবাদ সামাজিক বনায়ন নার্সারি ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের রক্ষিত বনভূমি দখলকালে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ঘটনায় ৩ জনকে আসামি করে চট্টগ্রাম বন আদালতে আজ বুধবার মামলা হয়েছে।'

গ্রেপ্তার রফিকুল ইসলাম রতন ছাড়া মামলার অপর আসামিরা হলেন-মো. ইলিয়াছ হোসেন ও মো. আবুল হোসেন। তারা দুজন পলাতক।

মামলার এজাহারে বলা হয়, আসামিরা দীর্ঘদিন ধরে সামাজিক বনায়ন নার্সারি ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের রক্ষিত বনভূমি দখলের চেষ্টা করছেন। এর ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার বনভূমির গাছ কেটে সেখানে পিলার স্থাপনের চেষ্টা করে আসামিরা। খবর পেয়ে বন বিভাগের একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছালে বাকি আসামিরা পালিয়ে গেলেও রফিকুল ইসলাম রতনকে ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

চট্টগ্রাম উত্তর বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মোজাম্মেল হক শাহ চৌধুরী দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'প্রায় ৩ একর বনভূমিতে সামাজিক বনায়ন নার্সারি ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রটি গড়ে তোলা হয়েছে। বনায়নের জন্য নার্সারিটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে দখলকারীরা ওই নার্সারির জায়গা দখলের চেষ্টা করতেছে। আমরা দখলকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিচ্ছি।'

Comments