লক্ষ্মীপুরে সাবেক যুবলীগ-ছাত্রলীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা

মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নের নাগের হাট এলাকায় ওই ঘটনা ঘটে।
নিহত আব্দুল্লাহ আল নোমান ও রাকিব ইমাম। ছবি: সংগৃহীত

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার সাবেক যুবলীগ নেতা আব্দুল্লাহ আল নোমান ও ছাত্রলীগ নেতা রাকিব ইমামকে গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

নোমান জেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এবং রাকিব ইমাম জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন।

লক্ষ্মীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মো. সোহেল রানা এ তথ্য জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নের নাগের হাট এলাকায় ওই ঘটনা ঘটে।

মো. সোহেল রানা জানান, গোলাগুলির শব্দ শুনে স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থলে গেলে তারা নোমান ও রাকিবকে মাটিতে পড়ে থাকতে দেখেন। পরে তাদের উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতাল নেওয়া হলে ডাক্তার নোমানকে মৃত ঘোষণা করেন। রাকিবকে গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে সাড়ে ১১টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

নিহত নোমানের বড় ভাই লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহফুজুর রহমান জানান, নোমান লক্ষ্মীপুর জেলা আওয়ামী লীগের প্রস্তাবিত কমিটির শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, 'সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ও চন্দ্রগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের ভাইস প্রেসিডেন্ট কাশেম জিহাদি ইউপি নির্বাচনে পরাজিত হওয়ার ঘটনা ও পূর্বশত্রুতার জের ধরে আমার ভাইকে হত্যা করেছে।'

সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি একেএম সালাহ উদ্দিন টিপু বলেন, 'নৃশংস এ হত্যাকাণ্ডের তীব্র নিন্দা জানাই এবং খুনিদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি চাই।'

চন্দ্রগঞ্জ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. তহিদুল ইসলাম দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'রাত সাড়ে ৯টার দিকে ওই হত্যাকাণ্ড ঘটে। ওই ঘটনায় কাউকে আটক করা যায়নি। তবে খুনিদের আটকে অভিযান অব্যাহত আছে।'

Comments