হল-মার্ক কেলেঙ্কারি: পর্যবেক্ষণে যা বললেন আদালত

‘অত্র মামলা দেশের ব্যাংকিং ইতিহাসে এক বিস্ময়কর ঘটনা।’
ছবি: সংগৃহীত

সোনালী ব্যাংকের সাড়ে ১০ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলায় আজ মঙ্গলবার রায় ঘোষণা করেছেন আদালত।

এই মামলায় আদালতের পর্যবেক্ষণ হলো—'অত্র মামলা দেশের ব্যাংকিং ইতিহাসে এক বিস্ময়কর ঘটনা। যে অপরাধীরা দেশের জনগণের আমানত, দেশের ব্যাংকিং ব্যবস্থা, দেশের অর্থনীতিকে খেলো মনে করে, তাদের মৃত্যুদণ্ডের মতো সাজা হওয়া উচিত মর্মে আদালত মনে করে। কিন্তু সংশ্লিষ্ট আইনে সর্বোচ্চ সাজা যাবজ্জীবন। এমতাবস্থায় অপরাধের সঙ্গে সরাসরি জড়িতদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হলো।'

এই মামলার সাজাপ্রাপ্ত ১৭ জন হলেন—হল-মার্কের চেয়ারম্যান জেসমিন ইসলাম ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক তানভীর মাহমুদ, জেসমিনের ভাই তুষার আহমেদ, সোনালী ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক হুমায়ুন কবির, সাবেক উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মইনুল হক, সাবেক মহাব্যবস্থাপক মীর মহিদুর রহমান, ননী গোপাল নাথ, সফিজ উদ্দিন আহমেদ ও সাবেক সহকারী মহাব্যবস্থাপক সাইফুল হাসান ও কামরুল হোসেন খান, সাবেক নির্বাহী কর্মকর্তা আবদুল মতিন ও এর ধানমন্ডি শাখার সাবেক সিনিয়র নির্বাহী কর্মকর্তা মেহেরুন্নিসা মেরি, নকশি নিট লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবদুল মালেক, প্যারাগন নিট কম্পোজিট লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাইফুল ইসলাম রাজা, ম্যাক্স স্পিনিং মিলস লিমিটেডের স্বত্বাধিকারী মীর জাকারিয়া, টি অ্যান্ড ব্রাদার্স লিমিটেডের পরিচালক তসলিম হাসান ও সাভারের তেঁতুলঝাড়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান জামাল উদ্দিন সরকার।

রায়ে দণ্ডবিধির ৪০৯ ধারায় তানভীর ও জেসমিনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং পাঁচ কোটি টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়। একইসঙ্গে ৪২০ ধারায় সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয় তাদের।

সাইফুল হাসান, আবদুল মতিন, তুষার আহমেদ, মীর জাকারিয়া, সাইফুল ইসলাম রাজা, আবদুল মালেক ও তসলিম হাসানকে দণ্ডবিধির ৪০৯ ও ১০৯ ধারায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ১০ লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে ৪২০ ও ১০৯ ধারায় সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও দুই লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

মেহেরুন্নিসা মেরি, মীর মহিদুর রহমান, মইনুল হক, সফিজ উদ্দিন আহমেদ, কামরুল হোসেন খান, হুমায়ুন কবির ও ননী গোপাল নাথকে ৪০৯ ও ১০৯ ধারায় ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ১০ লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে ৪২০ ও ১০৯ ধারায় সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও দুই লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

জামাল উদ্দিন সরকারকে ৪০৯ ও ১০৯ ধারায় পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও পাঁচ লাখ টাকা অর্থদণ্ড এবং ৪২০ ও ১০৯ ধারায় দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও দুই লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

Comments

The Daily Star  | English
Civil society in Bangladesh

Our civil society needs to do more to challenge power structures

Over the last year, human rights defenders, demonstrators, and dissenters have been met with harassment, physical aggression, detainment, and maltreatment by the authorities.

9h ago