ফরিদপুর-৩

দ্বৈত নাগরিকত্বের অভিযোগ, নৌকার প্রার্থী শামীমের প্রার্থিতা বাতিলে স্বতন্ত্র প্রার্থী আজাদের আবেদন

নৌকার প্রার্থী শামীম হক ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও আবেদনকারী স্বতন্ত্র প্রার্থী এ কে আজাদ জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা কমিটির সদস্য।
আ. লীগ প্রার্থী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী
নৌকার প্রার্থী ও ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শামীম হক (বামে) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী ও জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা কমিটির সদস্য এ কে আজাদ (ডানে)। ছবি: সংগৃহীত

আসন্ন সংসদ নির্বাচনে ফরিদপুর-৩ (সদর) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শামীম হক নেদারল্যান্ডসের নাগরিক, এমন অভিযোগ তুলে তার প্রার্থিতা বাতিল চেয়ে আবেদন করেছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী এ কে আজাদ।

শামীম হক জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও আবেদনকারী এ কে আজাদ জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা কমিটির সদস্য।

আজ শুক্রবার এ কে আজাদের পক্ষে তার আইনজীবী মো. গোলাম কিবরিয়া নির্বাচন কমিশনে আপিল আবেদন জমা দেন। 

আইনজীবী সাংবাদিকদের বলেন, 'নৌকার প্রার্থী শামীম হক নেদারল্যান্ডসের নাগরিক। স্বতন্ত্র প্রার্থী এ কে আজাদ তথ্য-উপাত্তসহ লিখিত অভিযোগ করা সত্ত্বেও রিটার্নিং কর্মকর্তা শামীম হকের মনোনয়নপত্র বাতিল না করে বৈধ ঘোষণা করেন।'

আইনজীবী গোলাম কিবরিয়া বলেন, 'শামীম হক সম্প্রতি বাংলাদেশি পাসপোর্ট ইস্যু করতে ফরিদপুর পাসপোর্ট কার্যালয়ে দরখাস্ত দিয়েছেন। দরখাস্তে দ্বৈত নাগরিকত্বের ঘরে তিনি টিক মার্ক দিয়েছেন। ২৬ নম্বর কলামে অন্য দেশের নামের জায়গায় নেদারল্যান্ডস উল্লেখ করেছেন।'

এই আইনজীবী আরও বলেন, 'একজন বিদেশি নাগরিক হওয়ায় তিনি সংসদ সদস্য পদে প্রার্থী হতে পারেন না। এফিডেভিটে এ তথ্য গোপন করায় তার মনোনয়ন বাতিল হওয়ার কথা।'

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে শামীম হক আজ সন্ধ্যায় বলেন, 'আমি নেদারল্যান্ডসের নাগরিক ছিলাম। তবে আমি সম্প্রতি ওই নাগরিকত্ব প্রত্যাহারের জন্য দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আবেদন করেছি। নেদারল্যান্ডসের দূতাবাস জানিয়েছে, আমার আবেদন গ্রহণ করা হয়েছে।'

Comments